শিক্ষার্থীদের আবাসন ও সেশন ফি মওকুফসহ আদায়কৃত অর্থ ফেরত দেওয়ার দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়নের জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় সংসদ।

বৃহস্পতিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার বরাবর সংগঠনের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি তুষার ধর স্বাক্ষরিত এক স্মারকলিপিতে এসব দাবি জানানো হয়।

স্মারকলিপিতে বলা হয়েছে, শিক্ষার্থীরা আবাসিক হলের বাইরে থাকলেও শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে আবাসন ফি আদায় করা হচ্ছে। পাশাপাশি করোনাকালে শিক্ষার্থীদের শ্রেণিকক্ষে পাঠদান না করা হলেও তাদের কাছ থেকে সেশন ফি আদায় করছে কর্তৃপক্ষ।

এতে আরও বলা হয়, সম্প্রতি বিভিন্ন বিভাগের বর্ষ সমাপনী পরীক্ষা অনলাইনে অনুষ্ঠিত হওয়ায় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন চূড়ান্ত পরীক্ষার ফি মওকুফ করেছে। কিন্তু ভর্তি ও শিক্ষাবৃত্তিসহ অন্যান্য কারণে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে হল ক্লিয়ারেন্সের নামে আবাসন ও সেশন ফি নেওয়া হচ্ছে। বিগত মাসগুলোর হল ফি পরিশোধ না করায় শিক্ষার্থীদের ক্লিয়ারেন্স দেওয়া হচ্ছে না।

এই প্রেক্ষিতে ছাত্র ইউনিয়নের বিশ্ববিদ্যালয় সংসদ কয়েকটি দাবি জানিয়েছে। দাবিগুলো হলো—বিগত ১৮ মাসের আবাসন ও সেশন ফি মওকুফ করে অন্তত আগামী এক বছরের সকল ফি মওকুফ করা, যেসব শিক্ষার্থীর কাছ থেকে এরই মধ্যে ফি আদায় করা হয়েছে তাদের টাকা দ্রুত ফেরত দেওয়া এবং যেসব শিক্ষার্থী সশরীরে উপস্থিত হয়ে সম্পূরক বৃত্তির টাকা তুলতে পারছে না তাদের বৃত্তির টাকা মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে প্রদান করা।