চলতি মাসেই দেশের সব বিশ্ববিদ্যালয় খুলে দেওয়ার দাবি জানিয়েছেন তেল-গ্যাস-খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির সদস্য সচিব ও জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ। তিনি বলেছেন, হলগুলোতে শিক্ষার্থীরা যাতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে থাকতে পারে সেই ব্যবস্থা করতে হবে। গণরুম প্রথা বন্ধ করতে হবে।

শিক্ষা দিবস উপলক্ষে শুক্রবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যে সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট আয়োজিত ছাত্র সমাবেশে তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেল সেন্টারগুলোতে শিক্ষার্থীদের ভ্যাকসিন দেওয়া, করোনা টেস্ট ও চিকিৎসার ব্যবস্থা করারও দাবি জানান।

ফ্রন্টের সভাপতি আল কাদেরী জয়ের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দীন প্রিন্সের সঞ্চালনায় সমাবেশে আরও বক্তব্য দেন বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দলের (বাসদ) কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য রাজেকুজ্জামান রতন, বজলুর রশীদ ফিরোজ প্রমুখ। আনু মুহাম্মদ বলেন, এ দেশে এখন আগের যে কোনো সময়ের তুলনায় শিক্ষা অনেক বেশি বাণিজ্যিক হয়েছে। আগের যে কোনো সময়ের তুলনায় শিক্ষাব্যবস্থায় সাম্প্রদায়িক চিন্তাধারা অনেক বেশি।

ছাত্র ইউনিয়নের সমাবেশ :শিক্ষা দিবসের ৫৯তম বার্ষিকী স্মরণে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বোপার্জিত স্বাধীনতা চত্বরে বিকেলে ছাত্র সমাবেশের আয়োজন করে ছাত্র ইউনিয়নের কেন্দ্রীয় সংসদ। সংগঠনের কেন্দ্রীয় সভাপতি মো. ফয়েজউল্লাহর সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক দীপক শীলের সঞ্চালনায় সমাবেশে বক্তব্য দেন ঢাবির অর্থনীতি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক এম এম আকাশ, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের অধ্যাপক কাবেরী গায়েন, ছাত্র ইউনিয়নের সাংগঠনিক সম্পাদক সুমাইয়া সেতু, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সংসদের সহসভাপতি মাহির শাহরিয়ার রেজা, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় সংসদের সভাপতি কেএম মুত্তাকি, ঢাকা মহানগর সংসদের সদস্য প্রিতম ফকির, বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের সদস্য মুক্ত রেজোয়ান প্রমুখ।

অধ্যাপক এম এম আকাশ বলেন, শিক্ষায় কর ও ভ্যাট আরোপ করা হয়েছে। শিক্ষার অধিকার আদায়ের পাশাপাশি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে প্রতিক্রিয়াশীল শক্তির বিরুদ্ধেও লড়াই চালিয়ে যেতে হবে।

প্রগতিশীল ছাত্র সংগঠনসমূহের সমাবেশ :শিক্ষা দিবস উপলক্ষে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে প্রগতিশীল আটটি ছাত্র সংগঠনের জোট সমাবেশ করেছে 'প্রগতিশীল ছাত্র সংগঠনসমূহ'। সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের (বাসদ-মার্কসবাদী) সভাপতি মাসুদ রানার সভাপতিত্বে ও গণতান্ত্রিক ছাত্র কাউন্সিলের সহসভাপতি সায়েদুল হক নিশানের সঞ্চালনায় সমাবেশে বক্তব্য দেন গণতান্ত্রিক ছাত্র কাউন্সিলের সভাপতি আরিফ মঈন উদ্দিন, ছাত্র ইউনিয়নের একাংশের সহসভাপতি অনিক রায়, চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সভাপতি সুবাশিষ চাকমা, বিপ্লবী ছাত্র যুব আন্দোলনের সভাপতি আতিফ অনিক, বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রীর সাধারণ সম্পাদক দিলীপ রায় প্রমুখ।

এ ছাড়া দিবসটি উপলক্ষে ছাত্রলীগ, ছাত্র অধিকার পরিষদ, মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চসহ বিভিন্ন ছাত্র সংগঠন রাজধানীর শিক্ষা ভবন মোড়ে অবস্থিত 'শিক্ষা অধিকার চত্বরে' ১৯৬২ সালে শাহাদাতবরণকারীদের ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানায়।