জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের দিনটি স্মরণ করতে আগামী ১০ জানুয়ারি গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় ‘টুঙ্গিপাড়া: হৃদয়ে পিতৃভূমি’ শিরোনামে দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটি। 

বুধবার সকালে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির কার্যালয়ে এই অনুষ্ঠানটি উপলক্ষে প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে; যাতে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম সভাপতিত্ব করেন। 

অনুষ্ঠানের শুরুতে বঙ্গবন্ধুর সমাধিসৌধে শ্রদ্ধা নিবেদন অনুষ্ঠানটি আয়োজনের রূপরেখা তুলে ধরেন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির প্রধান সমন্বয়ক ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী। জাতির পিতার প্রতি শ্রদ্ধাজ্ঞাপনের এ অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা উপস্থিত থাকবেন বলে তিনি আশাপ্রকাশ করেন।

শ্রদ্ধাজ্ঞাপন অনুষ্ঠানটি যথাযথ ভাবগাম্ভীর্যপূর্ণ এবং সফলভাবে আয়োজনের পাশাপাশি ‘মুজিববর্ষ লোকজমেলা’ আয়োজনের স্থান, তারিখ, চলচ্চিত্র প্রদর্শন এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের পরিবেশনা ও রূপরেখা প্রণয়ন এবং অনুষ্ঠানটি দেশে এবং বিদেশে সরাসরি সম্প্রচারের ওপরও গুরুত্বারোপ করেন সভার বক্তারা। 

সভায় অন্যানের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি, সাবেক মন্ত্রী ফারুক খান, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক এবং আব্দুর রহমান, জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির সংস্কৃতি বিষয়ক উপকমিটির আহ্বায়ক আসাদুজ্জামান নূর, সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কে. এম. খালিদ, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফ ও আ. ফ. ম. বাহাউদ্দিন নাছিম, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক সম্পাদক মৃণাল কান্তি দাস, সংস্কৃতিবিষয়ক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল এমপি, সাংগঠনিক সম্পাদক বি. এম. মোজাম্মেল হক ও মির্জা আজম, পানিসম্পদ উপমন্ত্রী এনামুল হক শামীম, শেখ সালাউদ্দিন জুয়েল এমপি এবং তার স্ত্রী শাহানা ইয়াসমিন, শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকী, ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার মো: খলিলুর রহমান, গণপূর্ত অধিদপ্তরের প্রধান প্রকৌশলী মোহাম্মদ শামীম আখতার, প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের মহাপরিচালক আবু ছালেহ মোহাম্মদ ফেরদৌস খানসহ সশস্ত্র বাহিনী বিভাগের প্রতিনিধি ও বাস্তবায়ন কমিটির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।