রাজধানীতে হঠাৎ করেই মশার দৌরাত্ম্য বেড়েছে। এডিস মশার উপস্থিতিও টের পাওয়া যাচ্ছে। বিভিন্ন হাসপাতালে ডেঙ্গু রোগী ভর্তি হওয়ার, এমনকি মারা যাওয়ার খবরও পাওয়া যাচ্ছে। এরই মধ্যে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি) ৯০৫টি হটস্পট চিহ্নিত করে সপ্তাহব্যাপী বিশেষ অভিযান পরিচালনা করছে।

তবে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে (ডিএসসিসি) এ ক্ষেত্রে নৈমিত্তিক কার্যক্রম ছাড়া বিশেষ কোনো উদ্যোগ এখনও নেওয়া হয়নি।

এ প্রসঙ্গে ডিএনসিসির অতিরিক্ত প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা লে. কর্নেল গোলাম মোস্তফা সারওয়ার সমকালকে জানান, এরই মধ্যে তারা ডিএনসিসি এলাকায় মশার ৯০৫টি হটস্পট চিহ্নিত করেছেন। গত নভেম্বরে এর মধ্যে ছয়শ হটস্পটে অভিযান চালানো হয়। ২৩ ডিসেম্বর থেকে আবারও অভিযান শুরু হয়েছে। চলমান অভিযানে বাকি হটস্পটগুলোতে অভিযান চালানো সম্ভব হলে কিউলেক্স মশা নিয়ন্ত্রণে চলে আসবে।

আলোচনা করেছেন সমকালের বিশেষ প্রতিনিধি অমিতোাষ পাল ও সহ-সম্পাদক রিফাত তাসনুভা