পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশিপ (পিপিপি) প্রকল্পসহ বিভিন্ন সংস্থার প্রকল্পনির্ভর কার্যক্রম পরিকল্পিত নগরী গড়ে তুলতে বাধা সৃষ্টি করছে বলে অভিযোগ করেছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস।

তিনি বলেছেন, আমরা অপরিকল্পিত এই শহরকে পরিকল্পিতভাবে গড়ে তোলার চেষ্টা করছি। কিন্তু অযাচিত ও অনাকাঙ্ক্ষিতভাবে বিভিন্ন সংস্থা এখনও আগ্রাসন চালাচ্ছে। বিআইডব্লিউটিএ বলেন কিংবা পিপিপি প্রকল্পের নামে ঢাকা শহরে বিভিন্ন সংস্থা প্রকল্পনির্ভর কাজ করে আমাদের এই অগ্রযাত্রা ব্যাহত করছে।

বুধবার রাজধানীর গুদারাঘাটের ত্রিমোহনী ব্রিজ সংলগ্ন জিরানী খালের বর্জ্য অপসারণ কার্যক্রম পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এসব কথা বলেন।

গত বছর কোথায় কোথায় জলাবদ্ধতা হয়েছে সেগুলো চিহ্নিত করে অবকাঠামো উন্নয়নে কার্যক্রম চলছে জানিয়ে তাপস বলেন, জলাবদ্ধতা নিরসনকল্পে পোস্তগোলায় ৬ ফুট ব্যাসার্ধের পাইপ বসিয়েছি। সেটা হয়ে গেলে পোস্তগোলা থেকে জুরাইন কবরস্থান পর্যন্ত এলাকায় জলাবদ্ধতা নিরসন হবে। ধীরে ধীরে ঢাকাবাসী এর সুফল পাওয়া শুরু করেছে। তবে খাল নিয়ে আমরা যে প্রকল্প নিয়েছিলাম, সেটি এখনও আলোর মুখ দেখেনি। এটা অত্যন্ত দুঃখজনক। এটা আবারও মন্ত্রণালয়ে পাঠানোর জন্য কাজ করছি।

এর আগে মেয়র তাপস পোস্তগোলা এলাকায় ডিএসসিসির ৪৭ নম্বর ওয়ার্ডের অন্তর্বর্তীকালীন বর্জ্য স্থানান্তর কেন্দ্রের (এসটিএস) উদ্বোধন ও বাসাবো বালুরমাঠ পুকুরে হাঁস অবমুক্ত করেন। পরে তিনি ধানমন্ডি হাইস্কুল মাঠে ‘ধানমন্ডি প্রগতি সংঘে’র ৫০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর তিন দিনব্যাপী আয়োজনের সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন।

এ সময় ডিএসসিসির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ফরিদ আহাম্মদ, প্রধান প্রকৌশলী সালেহ আহম্মেদ, সচিব আকরামুজ্জামান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।