ব্যাংকের চেয়ে বেশি মুনাফা দেওয়ার নামে অন্তত ৩০ কোটি টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে গ্রিনবার্ড মাল্টিপারপাস কো-অপারেটিভ নামের একটি সমবায় সমিতির বিরুদ্ধে। এ অভিযোগে প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান আলাউদ্দিন আহমেদকে আটক করেছে পুলিশ। এদিকে পাওনা টাকা ফেরত দেওয়ার দাবিতে বুধবার রাজধানীর রামপুরায় বিক্ষোভ করেছেন হাজারো ভুক্তভোগী।

রামপুরা থানার ওসি রফিকুল ইসলাম সমকালকে বলেন, খিলগাঁওয়ের তালতলা এলাকায় প্রতিষ্ঠানটির কার্যালয়। আটক ব্যক্তি দাবি করছেন, তিনি অনুমোদন নিয়ে বৈধভাবে সমিতি পরিচালনা করছিলেন। তিনি কিছু কাগজপত্রও দেখিয়েছেন। সেগুলো যাচাই করে দেখতে হবে। ভুক্তভোগীদের পক্ষ থেকে একটি মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে। এরপর তাকে ওই মামলায় গ্রেপ্তার দেখানো হবে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, পাওনা টাকা আদায়ের দাবিতে প্রথমে মঙ্গলবার রাতে গ্রিনবার্ড মাল্টিপারপাস কো-অপারেটিভ কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ করেন সমিতির সদস্যরা। এরপর গতকাল সকালে তারা মেরাদিয়া এলাকায় রাস্তা অবরোধ করেন। পরে রামপুরা থানার সামনে গিয়ে জড়ো হন। তাদের অভিযোগ, মোটা অঙ্কের মুনাফা দেওয়ার কথা বলে সদস্যদের থেকে ৩০-৪০ কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন আলাউদ্দিন আহমেদ। বেশিরভাগ নিম্ন আয়ের মানুষ টাকা জমা দিয়েছিলেন। কিন্তু এখন তারা মুনাফা বা আসল টাকা কোনোটাই পাচ্ছেন না।

রায়হান আহমেদ নামের এক ভুক্তভোগী সাংবাদিকদের জানান, তার পরিবারের সদস্যরা মোট ৭ লাখ টাকা জমা দিয়েছেন। এখন আর সেই টাকা উদ্ধার করতে পারছেন না। এমন অনেকে আছেন, যারা টাকা ধার করে এনে বেশি লাভের আশায় সমিতিতে জমা রেখেছেন। তারা সবাই এখন মারাত্মক বিপদে পড়েছেন।

ভুক্তভোগীরা জানান, কিছুদিন আগে সমিতির চেয়ারম্যান ঘোষণা দেন, তিনি কোনো টাকা ফেরত দিতে পারবেন না। এতে সবাই ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন। তাদের অভিযোগের মুখে মঙ্গলবার রাতেই আলাউদ্দিন আহমেদকে হেফাজতে নেয় পুলিশ। তবে প্রথমে কেউ মামলা করতে রাজি হচ্ছিলেন না। পরে গতকাল বিকেলে তারা এ ব্যাপারে সম্মত হয়েছেন।