রাজধানীর মিরপুরে সাথী আক্তার (২৪) নামে এক গৃহবধূকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করা হয়েছে। হত্যার অভিযোগে স্বামী মো. হান্নানকে (৩০) গ্রেপ্তার করেছে পল্লবী থানা পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাতে এ হত্যাকাণ্ড ঘটে।

পুলিশ জানিয়েছে, সাথী আক্তার ও হান্নান দম্পতির গ্রামের বাড়ি বাগেরহাট জেলায়। হান্নান গ্রামে রাজমিস্ত্রির জোগালির কাজ করেন। স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে মনোমালিন্য ছিল। এ কারণে কিছু দিন আগে সাথী ঢাকায় চলে আসেন। মিরপুর সেকশন-৭-এ একটি তৈরি পোশাক কারখানায় শ্রমিকের চাকরি নেন এবং একই এলাকায় বসবাস করছিলেন। এর আগেও তিনি মিরপুরে তৈরি পোশাক কারখানায় চাকরি করেছেন।

বৃহস্পতিবার সকালে হান্নান গ্রামের বাড়ি থেকে মিরপুরে আসেন। রাত ৯টার দিকে মিরপুর সেকশন-৭-এর একটি গলিতে স্ত্রীকে মোবাইল ফোনে কথা বলতে দেখেন তিনি। এ সময় ব্যাগে থাকা ছুরি বের করে পেছন দিক থেকে সাথীকে ছুরিকাঘাত করেন তিনি। তাঁর চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে গিয়ে হান্নানকে আটক করে। খবর পেয়ে পল্লবী থানা পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে গ্রেপ্তার করে হান্নানকে।

এ দিকে সাথীকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে স্থানীয় একটি হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) পল্লবী জোনের অতিরিক্ত উপপুলিশ কমিশনার আরিফুল ইসলাম সমকালকে বলেন, হান্নান প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছেন, স্ত্রীর সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক ভালো ছিল না। তাঁর সন্দেহ, সাথীর অন্য কোনো পুরুষের সঙ্গে সম্পর্ক করেছে।