রাজধানীর খিলক্ষেতে ট্রেনে কাটা পড়ে ইয়ামিন আহমেদ (২৬) নামের এক পুলিশ কনস্টেবলের মৃত্যু হয়েছে। তিনি ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) পুলিশ অর্ডার ম্যানেজমেন্টে (পিওএম) কর্মরত ছিলেন। বৃহস্পতিবার এ দুর্ঘটনা ঘটে।

পুলিশ জানায়, ইয়ামিন আহমেদের গ্রামের বাড়ি ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার নবীনগরে। তার বাবার নাম নুরুল ইসলাম।

ঢাকা রেলওয়ে থানার বিমানবন্দর পুলিশ ফাঁড়ির উপপরিদর্শক (এসআই) কামরুল হাসান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, কুড়িল বিশ্বরোড ও খিলক্ষেতের মাঝামাঝি রেললাইন দিয়ে মুঠোফোনে কথা বলতে বলতে হাঁটছিলেন ইয়ামিন আহমেদ। এ সময় ট্রেন আসতে দেখে তিনি পাশের আরেক লাইনে যান। কিন্তু ওই সময় সেই লাইন দিয়ে আরেকটি ট্রেন এসে পড়ে। এ সময় ট্রেনে কাটা পড়েন তিনি।

কামরুল হাসান আরও বলেন, ইয়ামিন আহমেদের মরদেহ উদ্ধার করে সন্ধ্যায় ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজের মর্গে পাঠানো হয়েছে।