ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলায় অগ্নিকাণ্ডে এক কৃষক আবুল কালামের বিভিন্ন জাতের চারটি গরু পুড়ে মারা গেছে। এতে আহত হয়েছে আরও একটি গরু। মঙ্গলবার মধ্যরাতে উপজেলার গাঙ্গাইল ইউনিয়ন পরিষদের তালজাঙ্গা গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে।

বুধবার সকালে ওই বাড়িতে গিয়ে দেখা যায়, সেখানে লোকজনের ভিড়। গোয়াল ঘরের ভেতরে চারটি গরুর পুড়ে যাওয়া মৃতদেহ পড়ে আছে। আবুল কালাম কৃষিশ্রমিক হিসাবে কাজ করেন। কখনো রিকশা চালিয়ে, কখনো আখের রস বিক্রি করে জীবিকা নির্বাহ করেন। তার স্ত্রী আছমা (৪০) স্থানীয় একটি গার্মেন্টেস কারখানায় চাকরি করেন। দুই ছেলে ও দুই মেয়েকে নিয়ে পরিবারে স্বাচ্ছন্দ আনার জন্য বিভিন্ন এনজিও থেকে ঋণ নিয়ে ও হাতে থাকা কিছু টাকা দিয়ে বিভিন্ন জাতের চারটি গরু কিনেন ওই কৃষক।

ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক আবুল কালাম জানান, মঙ্গলবার সারাদিন বিদ্যুৎ ছিল না। গভীর রাতে বিদ্যুৎ আসার পরপরই গোয়াল ঘরে আগুন লেগে যায়। তিনি উঠে গিয়ে দেখেন, গোয়াল ঘরটি দাউ দাউ করে জ্বলছে। চিৎকার শুরু করলে প্রতিবেশীরা ছুটে আসেন। এক পর্যায়ে আগুন নেভানো হলেও গোয়ালে থাকা চারটি গরু পুড়ে মারা যায়। এ সময় অন্য একটি বাছুর (গরুর বাচ্চা) মুমূর্ষূ অবস্থায় বেঁচে থাকলেও সেটিও মারা যাবে বলে জানান আবুল কালাম।

ঘটনাস্থলে আসা গাঙ্গাইল ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সাবেক চেয়ারম্যান সৈয়দ আশরাফুজ্জামান খোকন জানান, ঘটনাটি খুবই দুঃখজনক। অগ্নিকাণ্ডে একজন খেটে খাওয়া মানুষের বড় ধরনের ক্ষতি হয়ে গেল।

নান্দাইল উপজেলা নির্বাহী অফিসার ( ইউএনও) মোহাম্মদ আবুল মনসুর সমকালকে বলেন, ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তিকে সাহায্য দেওয়া হবে।