এইচএসসি পরীক্ষার আগে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক নিয়োগে লিখিত পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব হবে না বলে জানিয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। 

সারাদেশে অনেক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এইচএসসি পরীক্ষার কেন্দ্র হিসেবে ব্যবহার হওয়ায় শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা ডিসেম্বরে নেওয়া না হতে পারে বলে কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

চলতি বছরে সাধারণ শিক্ষা বোর্ডগুলোর তত্ত্বীয় বিষয়ে এইচএসসি পরীক্ষা আগামী ২ ডিসেম্বর থেকে শুরু হয়ে ৩০ ডিসেম্বর শেষ হবে। মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের তত্ত্বীয় বিষয়ের পরীক্ষা ২ ডিসেম্বর থেকে শুরু হয়ে ১৯ ডিসেম্বর শেষ হবে। আর কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের তত্ত্বীয় বিষয়ের পরীক্ষা ২ ডিসেম্বর থেকে শুরু হয়ে ৮ ডিসেম্বর শেষ হবে।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা রোববার সমকালকে বলেন, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো নিয়োগ পরীক্ষা কেন্দ্র হিসেবে ব্যবহার করা হয়। এইচএসসি পরীক্ষায় যেহেতু অনেক পরীক্ষার্থী, তাই পরীক্ষা শেষ না করে নিয়োগ পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব হবে না।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) আলমগীর মুহম্মদ মনসুরুল আলম বলেন, এখনও নিয়োগ পরীক্ষার তারিখ নির্ধারণ হয়নি।

করোনা মহামারির কারণে দীর্ঘদিন প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব হয়নি। সম্প্রতি প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী জাকির হোসেন এক অনুষ্ঠানে বলেন, শিক্ষকস্বল্পতা দূর করতে আসছে ডিসেম্বরের মধ্যে ৩২ হাজার ৭০০ জন সহকারী শিক্ষক নিয়োগের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।