করোনাকালে বিধিনিষেধ মেনে চলার পাশাপাশি প্রাকৃতিকভাবে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর প্রতি বিশেষ গুরুত্ব দিতে বলছেন বিশেষজ্ঞরা। অতিমারির শুরু থেকেই রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে ভিটামিন সি সমৃদ্ধ খাবারের প্রতি ভরসা রাখতে বলেছেন চিকিৎসকরা। পাশাপাশি জিঙ্কও প্রতিরোধ ক্ষমতা আরও বাড়িয়ে তোলে।

চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী অনেকেই জিঙ্ক ট্যাবলেট খেতে শুরু করেছেন। যা শরীরের উপকারের বদলে আরও ক্ষতি করে। পুষ্টিবিদদের মতে, ট্যাবলেটের পরিবর্তে জিঙ্ক সমৃদ্ধ খাবার খেলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা আরও বাড়বে। যেসব খাবারে জিঙ্ক পাওয়া যায়-

১. রেড মিটে প্রচুর পরিমাণে জিঙ্ক রয়েছে। তবে চিকিৎসকের পরামর্শ মেনেই রেড মিট খাওয়া উচিত।

২. ডার্ক চকলেটে প্রচুর পরিমাণে জিঙ্ক থাকে। নিয়মিত ডার্ক চকলেট খেলে হৃৎপিণ্ডের স্বাস্থ্যও ভালো থাকে।

৩. ফ্ল্যাক্স সিড, চিয়া সিড, কুমড়োর বীজে পর্যাপ্ত পরিমাণে জিঙ্ক থাকে। সালাদে বা তরকারির সঙ্গে মিশিয়ে এগুলো খেতে পারেন।

৪. আলু, মাশরুম, বিনে জিঙ্ক থাকে অল্প পরিমাণে। বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ মেনে এই ধরনের সবজিও খাদ্যতালিকায় রাখতে পারেন।

৫. নিয়মিত ডিম খাওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন পুষ্টিবিদরা। ডিমের মধ্যেও জিঙ্ক বর্তমান।

৬. রোজের খাদ্যতালিকায় দুধ, দই রাখতে বলছেন বিশেষজ্ঞরা। এগুলোতেও প্রচুর পরিমাণে জিঙ্ক রয়েছে।

৭. ভাত এবং ওটসেও প্রচুর পরিমাণে জিঙ্ক রয়েছে । বিশেষজ্ঞের পরামর্শ মেনে এগুলোও খেতে পারেন।

৮. আমন্ড, চিনা বাদাম, কাজুবাদামেও ভরপুর জিঙ্ক রয়েছে। স্ন্যাক্স হিসেবে এই ধরনের বাদাম খেতে পারেন।