যানজটে আটকা পড়েছিল অটোটি। যাত্রী তিনজনও খানিকটা অধৈর্য হয়ে নেমে পড়ছিলেন অটো থেকে। তারা জানতে চাচ্ছিলেন ঠিক কী কারণে যানজট তৈরি হয়েছে। ঠিক সেই মুহূর্তে  হঠাৎ অটোর মধ্যে থেকে একটি তোয়ালে তুলে নিয়ে লাফ দেয় একটি বানর। এক লাফে উঠে গাছের ডালে। সেটা দেখে চিৎকার করে ওঠেন তোয়ালের মালিক। কারণ, সেই তোয়ালের মধ্যে জড়ানো ছিল এক লাখ টাকা।

তবে কেউ কিছু করার আগেই বানরটি তোয়ালে ঝাড়তে শুরু করে।  চারিদিকে শুরু হয় টাকার বৃষ্টি।

সম্প্রতি এমনই এক ঘটনা ঘটেছে ভারতের মধ্যপ্রদেশের জব্বলপুর জেলায়। হিন্দুস্তান টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত ৩০ সেপ্টেম্বর মহম্মদ আলী নামের এক ব্যক্তি আরও দুইজনকে নিয়ে অটোতে করে যাচ্ছিলেন। তাদের বহনকারী অটোটি কাতব ঘাট এলাকার পৌঁছলে যানজটে আটকা পড়ে। এই সময় মহম্মদ আলী এবং তার সঙ্গে থাকা দুই যাত্রী অটো থেকে নামতেই বানরটি এই কাণ্ড ঘটায়।

ওই প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, গাছে উঠে বানরটি তোয়ালে ঝাড়ার পর সব টাকা নীচে রাস্তায় ছড়িয়ে পড়ে। আলী অনেক চেষ্টা করে ৫৬ হাজার রুপি সংগ্রহ করতে পারেন। বাকি ৪৪ হাজার রুপি আর খুঁজে পাননি তিনি।

মাজহলি থানার ইনচার্জ শচীন সিং এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, ওই এলাকায় কোনো সিসিটিভি ক্যামেরা ছিল না। এ কারণে বাকি টাকাগুলো কে চুরি করেছে তা শনাক্ত করা যায়নি। ঘটনার সাথে বানর জড়িত থাকায় এ ব্যাপারে কোনো মামলাও করা হয়নি।

 ওই কর্মকর্তা আরও জানান,  ওই এলাকায় অনেক বানর রয়েছে। পথচারীরা তাদের খাবার দেয়। মাঝে মধ্যে বানররা গাড়ির মধ্যেও ঢুকে পড়ে।