বগুড়ায় পাঁচ শিশুকে যৌন নিপীড়ন ও ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে আলমগীর হোসেন রাজা (৫২) নামের এক মুদি দোকানিকে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে। 

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় শহরের নিশিন্দারা ধমকপাড়া এলাকায় বাড়ি থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। যৌন নিপীড়নের শিকার এক শিশুর মা বাদী হয়ে রাজার বিরুদ্ধে মামলা করেন। 

ওই শিশুদের বয়স ৯ থেকে ১১ বছরের মধ্যে। তারা পুলিশের কাছে বলেছে, দোকানে কেনাকাটা করতে গেলে রাজা বিভিন্ন সময় তাদের ওপর যৌন নিপীড়ন চালায়।

বগুড়া সদর থানার সাব-ইন্সপেক্টর জেবুন নেছা জানান, সর্বশেষ যৌন নিপীড়নের ঘটনা ঘটে চার দিন আগে দুপুরে। সেদিন এক শিশু দোকানে শ্যাম্পু কিনতে গেলে রাজা শিশুটিকে দোকানের ভেতরে গিয়ে শ্যাম্পু নিতে বলে। শিশুটি দোকানের ভেতরে যেতেই রাজা দরজা বন্ধ করে যৌন নিপীড়ন চালায়। শিশুটি বাধা দিলে দোকানি তাকে চাকু দিয়ে হত্যার হুমকি দেয়। শিশুটি ছাড়া পেয়ে বিষয়টি তার মাকে বলে। ওই শিশুর মা মঙ্গলবার বিকেলে থানায় রাজার বিরুদ্ধে মামলা করেন। মামলার পরই অভিযুক্তকে গ্রেপ্তারের জন্য অভিযান চালানো হয়। দোকানিকে গ্রেপ্তারের পর আরও চার শিশুর মা শিশুদের নিয়ে থানায় আসেন। 

জবানবন্দিতে তারা জানান, দীর্ঘদিন ধরে ওই দোকানি শিশুদের ওপর যৌন নিপীড়ন চালিয়ে আসছে।