নরসিংদী রেলওয়ে স্টেশনে ‘অশালীন পোশাক পরার অপবাদে’ এক তরুণীকে নারীসহ কয়েকজন নাজেহাল হওয়ার ঘটনা ঘটেছে। গত বুধবার বিকেল সাড়ে ৫টায় ঘটনাটি ঘটে।

নরসিংদী রেলওয়ে স্টেশন ও উপস্থিত যাত্রীদের কাছ থেকে জানা যায়, স্টেশনে অবস্থানরত তরুণী জিন্স প্যান্ট ও টপস পরার কারণে প্রথমে এক নারী গালা-গালি ও ভর্ৎসনা করে। পরবর্তীতে স্টেশনে অবস্থানরত অন্য লোকেরাও মেয়েটিকে ভর্ৎসনা করলে স্টেশনে বিশৃঙ্খলার সৃষ্টি হয়। একপর্যায়ে তরুণীটি দৌড়ে রেলওয়ে স্টেশন মাস্টারের কক্ষে আশ্রয় নেয়।

এ অবস্থায় শত শত লোকের জটলা হলে স্টেশনমাস্টার রেলওয়ে পুলিশকে খবর দেন। খবর পেয়ে রেলওয়ে পুলিশ তরুণীটিকে স্টেশন মাস্টারের কক্ষ থেকে উদ্ধার করে রেলওয়ে ফাঁড়িতে নিয়ে যায়। এ ঘটনায় তরুণীটি কোনো মামলা করতে রাজি না হওয়ায় রেলওয়ে পুলিশ তাকে বিকেল ৬টার দিকে ঢাকাগামী চট্টগ্রাম মেইল ট্রেনে তুলে দেয়।

এ ব্যপারে শুক্রবার ঘটনার সরেজমিনে খোঁজ নিতে আসেন নরসিংদী জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সিনিয়র ম্যাজিস্ট্রেট শ্যামল চন্দ্র বসাকসহ পুলিশের কর্মকর্তারা।

স্টেশনমাস্টার মুসা মিয়া জানান, আমরা তরুণীকে যথাযথ সম্মানের সাথে তার নিরাপত্তার জন্য রেলওয়ে পুলিশের হাতে হস্তান্তর করি। রেলওয়ে পুলিশের ইনচার্জ ইমায়েদুল জাহেদী জানান, যেহেতু তরুণীটি কোনো অভিযোগ করতে রাজি নয় সেহেতু তাকে যথাযথ নিরাপত্তার সাথে তাকে ট্রেনে তুলে দেই।

জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সিনিয়র ম্যাজিস্ট্রেট শ্যামল চন্দ্র বসাক জানান, আমরা ঘটনার খবর পেয়ে ঘটানাস্থলে এসে খোঁজ-খবর নিয়েছি। তবে এ ব্যপারে কোনো মামলা-মোকদ্দমা দায়ের করা হয়নি।