ডিজাইন ও ক্রিয়েটিভ ফেস্টিভাল দুবাই ডিজাইন উইক ২০২১-এ অংশগ্রহণ করল বাংলাদেশের ট্রেন্ডি ফার্নিচার ও লাইফস্টাইল ব্র্যান্ড ইশো। ৮ থেকে ১২ নভেম্বর এই ফেস্টিভালে আন্তর্জাতিক বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান অংশ নেয়।

ফেস্টিভালে ইশোর প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক রায়ানা হোসেন প্যানেলিস্ট হিসেবে অংশ নেন। 'ফিউচার অব হোমস' সেশনে গ্রাহকদের চাহিদা, অভিজ্ঞতা, প্রযুক্তি ও নকশা কিভাবে আবাসিক স্থাপত্য ও অভ্যন্তরীণ রূপান্তর ঘটাচ্ছে সে বিষয়ে কথা বলেন তিনি।

রায়ানা হোসেন তার বক্তব্যে বিভিন্ন আবাসিক স্থানের অতীত, বর্তমান ও ভবিষ্যতের প্রভাব কিভাবে নকশায় ফুটে উঠছে এবং করোনা মহামারি ভোক্তাদের চাহিদা ও প্রয়োজনীয়তায় পরিবর্তন এনেছে, সে বিষয়ে আলোকপাত করেন। 

প্রথম বাংলাদেশি কোম্পানি হিসেবে এই ফেস্টিভালে আমন্ত্রণ পাওয়া গর্বের বিষয় উল্লেখ করে তিনি বলেন,'অচিরেই আমরা দেশি উদ্ভাবন ও ডিজাইনভিত্তিক ইভেন্ট আয়োজন করতে সক্ষম হব।' 

প্যানেলিস্ট হিসেবে আরও ছিলেন অ্যাপেল ও বিএমডাব্লিউতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালনকারী আমেরিকান ডিজাইনার রব ম্যাকিনটোশ। এছাড়া বক্তব্য রাখেন, এলিংটন প্রপার্টিজ ডেভেলপমেন্ট এলএলসির গ্রুপ ডিজাইন ডিরেক্টর লরা বিলেকি। মডারেটর ছিলেন আর্কিটেকচারাল ডাইজেস্ট মিডল ইস্টের কন্টেন্ট পরিচালক প্রত্যুষ স্বরূপ। শেষের দু'জনই দুবাই ডিজাইন সপ্তাহের উপদেষ্টা বোর্ডের সদস্য।

আবাসিক নকশার দীর্ঘমেয়াদী ট্রেন্ড কীভাবে মানুষের রুচি, চাহিদা ও সুযোগ-সুবিধার ওপর নির্ভরশীল তা আলোচনায় উঠে আসে। এছাড়া প্রযুক্তিগত উদ্ভাবন কিভাবে ইন্টেরিয়র ও ডিজাইনের ওপর প্রভাব ফেলছে সে বিষয়েও  আলোচনা হয়। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি 

বিষয় : দুবাই ডিজাইন উইক ইশো

মন্তব্য করুন