ঢাকা সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪

এক দিনেই সাড়ে ২৮ হাজার কোটি টাকা ধার

এক দিনেই সাড়ে ২৮ হাজার কোটি টাকা ধার

.

সমকাল প্রতিবেদক

প্রকাশ: ০৭ ডিসেম্বর ২০২৩ | ২২:৪৪

উচ্চ মূল্যস্ফীতি এবং আস্থাহীনতার কারণে আশানুরূপ আমানত পাচ্ছে না অনেক ব্যাংক। যে কারণে ঋণ চাহিদা তলানিতে নামার এ সময়েও ধার করে চলতে হচ্ছে। গত বুধবার এক দিনেই কেন্দ্রীয় ব্যাংক ও বিভিন্ন ব্যাংক থেকে ধারের পরিমাণ ছিল সাড়ে ২৮ হাজার কোটি টাকা। এর মধ্যে শুধু কেন্দ্রীয় ব্যাংক দেয় ২৩ হাজার কোটি টাকার বেশি।
সংশ্লিষ্টরা জানান, সাধারণত ট্রেজারি বিল ও বন্ড বন্ধক রেখে ধার নেয় ব্যাংকগুলো। তবে শরিয়াহভিত্তিক পাঁচটি ব্যাংকের সব উপকরণ বন্ধক রেখে টাকা নেওয়ার ক্ষমতা আগেই শেষ হয়েছে। এখন কোনো ধরনের সিকিউরিটি ছাড়াই এসব ব্যাংকে ধার দিচ্ছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। এই ব্যাংকগুলো কেন্দ্রীয় ব্যাংকে সিআরআর বা এসএলআর রাখতে পারছে না।
বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্য অনুযায়ী, গত বুধবার কেন্দ্রীয় ব্যাংক মোট ২৩ হাজার ২৩৯ কোটি টাকা ধার দিয়েছে। এর মধ্যে ১৫ ব্যাংকের এক দিন মেয়াদি ধার ছিল ৭ হাজার ৪৮২ কোটি টাকা। ১৮টি ব্যাংক ও দুই আর্থিক প্রতিষ্ঠান সাত দিন মেয়াদে নিয়েছে ১১ হাজার ৪৮০ কোটি টাকা। আর সমস্যাগ্রস্ত পাঁচ শরিয়াহ ব্যাংকসহ ৭টি ইসলামী ব্যাংক নিয়েছে ৪ হাজার ২৭৭ কোটি টাকা। ৭ দশমিক ৭৫ শতাংশ থেকে সাড়ে ৮ শতাংশ পর্যন্ত সুদে এ অর্থ দেওয়া হয়েছে।
বাংলাদেশ ব্যাংকের বাইরে আন্তঃব্যাংক থেকে বুধবার ৫ হাজার ২২৮ কোটি টাকা ধার করে ব্যাংকগুলো। সাড়ে ১১ শতাংশ পর্যন্ত সুদে এ লেনদেন হয়। এর মধ্যে এক দিন মেয়াদি কলমানিতে ধারের পরিমাণ ছিল ৪ হাজার ৪১৮ কোটি টাকা। ৭ দশমিক ৭৫ শতাংশ থেকে ৯ দশমিক ২৫ শতাংশ সুদে এ লেনদেন হয়। এদিন সর্বোচ্চ সাড়ে ১১ শতাংশ সুদে ২১ দিন মেয়াদে ৩০ কোটি টাকা ধার করে একটি ব্যাংক।

আরও পড়ুন

×