বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েট) ভর্তির জন্য এইচএসসি বা সমমান পরীক্ষায় পদার্থবিদ্যা ও রসায়নের প্রতিটিতে অন্তত ৯৩ শতাংশ নম্বর পাওয়ার শর্ত কেন বাতিল ও অবৈধ ঘোষণা করা হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

মঙ্গলবার বিচারপতি খিজির আহমেদ চৌধুরী ও বিচারপতি সরদার মো. রাশেদ জাহাঙ্গীর সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের অবকাশকালীন বেঞ্চ এই রুল জারি করেন। 

আগামী চার সপ্তাহের মধ্যে বুয়েটের উপাচার্য (ভিসি), রেজিস্ট্রার ও শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব, ২০২১-২০২২ শেসনের ভর্তি কমিটির চেয়ারম্যানকে এই রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

গত ১৯ এপ্রিল বুয়েট ভর্তির জন্য এইচএসসি বা সমমান পরীক্ষায় পদার্থবিদ্যা ও রসায়নের প্রতিটিতে অন্তত ৯৩ শতাংশ নম্বর পেতে হবে বলে শর্ত জুড়ে দেওয়া হয়। পরে ওই শর্তের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট দায়ের করেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ইউনুস আলী আকন্দ। আদালতে রিটের পক্ষে আইনজীবী ইউনুছ আলী আকন্দ নিজেই শুনানি করেন।

রিট আবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে, পূর্বের বছরগুলোর বিজ্ঞপ্তিতে নম্বর উল্লেখ করে কোনো শর্ত যুক্ত ছিল না। কিন্তু শর্ত দিয়ে এবারই প্রথম শিক্ষার্থীদের ওপর এটি চাপিয়ে দেওয়া হয়েছে। ফলে বুয়েটে ভর্তিচ্ছুদের ৯৩ শতাংশ নম্বর পাওয়ার শর্ত সংবিধানের ২৮(৩) ও ৩১ অনুচ্ছেদের সঙ্গে সাংঘর্ষিক।