ঢাকা বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪

মাকে ভালোবাসায় জড়িয়ে রাখতে নগদ কর্মীদের ছুটি

মাকে ভালোবাসায় জড়িয়ে রাখতে নগদ কর্মীদের ছুটি

ছবি: সংগৃহীত

সমকাল প্রতিবেদক

প্রকাশ: ১২ মে ২০২৪ | ১৫:৩২

আপেল মাহমুদ ছোটবেলাতেই বাবাকে হারিয়েছেন। একমাত্র ছেলেকে নিদারুণ কষ্ট করে বড় করে তুলেছেন তার মা। আপেল ভাবেন, মায়ের জন্য জীবনের সবটুকু সময় উৎসর্গ করে দিতে পারলে বেশ হতো। অন্তত মা দিবসের দিনটা মায়ের সঙ্গে কাটানোর স্বপ্ন দেখেন তিনি।

নিয়ম অনুসারে মা দিবস, মানে মে মাসের দ্বিতীয় রোববার; সেটা আবার বাংলাদেশে সপ্তাহের প্রথম কর্মদিবস। তাই মায়ের সঙ্গে এই দিনটা কাটানোর স্বপ্ন কখনোই তার সত্যি হয় না।

আপেলের এই স্বপ্ন সত্যি না হলেও দেশের একটি প্রতিষ্ঠান তার কর্মীদের এই স্বপ্ন পূরণ করার ঘোষণা দিয়েছে। দেশের অন্যতম শীর্ষ মোবাইল আর্থিক সেবা প্রতিষ্ঠান নগদ লিমিটেড ঘোষণা করেছে, এই বছরের মা দিবসে তাদের যে কোনো কর্মী মায়ের সঙ্গে সময় কাটানোর জন্য অর্ধ দিবস ছুটি পাবেন। সে জন্য তার বার্ষিক ছুটিতে কোনো প্রভাব পড়বে না।

নগদের এই ঘোষণাটি সব কর্মীকে ইমেইলের মাধ্যমে জানানো হয়েছে। পরে প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা তানভীর এ মিশুকও এই দিবসে সব কর্মীকে শুভেচ্ছা জানানো এবং কর্মীদেরকে নিজ নিজ মায়ের সঙ্গে সময় কাটাতে উৎসাহিত করেন।

তিনি বলেন, ‘আমি নিজে আমার মাকে দেখেছি যে, তিনি সন্তানের জন্য কতটা আত্মত্যাগ করেছেন। সব মা-ই তাই করে থাকেন। আমার অনুরোধ, আজকের দিনটা (১২ মে, রোববার) অন্তত মাকে একটু সময় দিন। এ জন্য আমি আমার নগদ পরিবারের সব কর্মীকে এদিনে অর্ধ বেলা মায়ের সঙ্গে সময় কাটাতে বলেছি।’

সংশ্লিষ্টরা জানান, মা দিবসে কর্মজীবী সন্তান মায়ের সঙ্গে এক বেলা কাটাবে– এমন আয়োজন আমাদের জন্যে অভিনব।

শুধু এবারই নয়, নগদ তার কর্মীদের জন্য এমন নানান অভিনব সুযোগ নিয়মিতই দিয়ে আসছে। এই প্রতিষ্ঠানটি প্রতিটি কর্মীর জন্মদিন পালন করে থাকে কেক কেটে। এ ছাড়া জন্মদিন উপলক্ষে প্রত্যেক কর্মীকে অর্ধ দিবস ছুটি দেওয়া হয়; যাতে বিশেষ দিনটিতে পরিবারের সঙ্গে সময় কাটানোর সুযোগ হয়। প্রতি বছর নারী দিবসে প্রতিষ্ঠানটি নারী কর্মীদের উপহার দেওয়া এবং তাদের সুবিধা দেওয়ার বিষয়টি ঘটা করে পালন করে আসছে প্রতিষ্ঠানটি।

ক’দিন আগে ভয়ানক তাবদাহের সময় মাঠকর্মীদের নিরাপদ রাখতে অভিনব সিদ্ধান্ত নিয়েছিলো তারা। যে কোনো মূল্যে তাদের নিরাপদ রাখতে প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা তানভীর এ মিশুক বেশ কিছু নির্দেশনা দিয়েছিলেন। এপ্রিল মাসে ব্যবসায়িক লক্ষ্য পূরণের সঙ্গে সঙ্গে শরীর ঠিক রাখাতে কিছুটা ব্যবসায়িক ক্ষতি মেনে নেওয়ার উদারতাও দেখান তিনি।

এছাড়া কর্মী নিয়োগের ক্ষেত্রে সনদপত্র বিবেচনা না করে যোগ্যতা অনুযায়ী নিয়োগ দেওয়ার বিধান চালু করে প্রতিষ্ঠানটি বাজারে রীতিমতো হৈ চৈ ফেলে দিয়েছিল। তারপর থেকে এখনো পর্যন্ত আর নতুন কর্মী নিয়োগ দেওয়ার সময় আর সার্টিফিকেট চায় না নগদ।

আরও পড়ুন

×