বীর মুক্তিযোদ্ধাদের কবরের সীমানা প্রাচীর নির্মাণ ও নামফলক স্থাপনে নিম্নমানের সরঞ্জাম ব্যবহারের সঙ্গে জড়িতদের শাস্তির আওতায় আনার সুপারিশ করেছে সংসদীয় কমিটি। একই সঙ্গে কমিটি শহীদ মুক্তিযোদ্ধা ও বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সমাধিস্থলের নামফলক প্রকল্প কমনওয়েলথ ওয়ার সিমেট্রির আদলে পুনর্বিন্যাসের সুপারিশ করেছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার সংসদ ভবনে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটির বৈঠকে এসব সুপারিশ করা হয়। কমিটির সভাপতি শাজাহান খানের সভাপতিত্বে বৈঠকে কমিটির সদস্য মুক্তিযুদ্ধবিষয়কমন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক, মেজর (অব.) রফিকুল ইসলাম বীরউত্তম ও মোছলেম উদ্দিন আহমদ অংশ নেন।

বৈঠকে দেশের কয়েকটি এলাকায় বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সমাধির নামফলকের লেখা মুছে যাওয়া এবং সমাধির দেয়াল ভেঙে পড়ার বিষয়ে প্রতিবেদন দিতে সাব-কমিটি বাতিল করে সংসদীয় কমিটির সদস্যদের সমন্বয়ে নতুন সাব-কমিটি গঠনের সিদ্ধান্ত হয়। গুলিস্তান শপিং কমপ্লেক্স ভবনে চুক্তির শর্ত ভঙ্গ করে দোকান পরিচালনা এবং অবৈধভাবে মামলা দিয়ে হয়রানির চেষ্টাকারীদের উচ্ছেদ করে আইনি ব্যবস্থা, মুক্তিযোদ্ধা কল্যাণ ট্রাস্টের মামলা পরিচালনাকারী আইনি উপদেষ্টার নিয়োগ বাতিলেরও সুপারিশ করা হয়। এ ছাড়া বৈঠকে অসচ্ছল বীর মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য আবাসন 'বীরনিবাস নির্মাণ' প্রকল্প ইউএনওদের মনিটরিং ও ভিজিট বই সংরক্ষণের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।