বিএনপির বিভাগীয় গণসমাবেশে অংশ নিয়ে দেশের মানুষ সরকারকে লাল কার্ড দেখিয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য সেলিমা রহমান। তিনি বলেন, সরকার যা বলছে, সব মিথ্যা। ২০০৮ সাল থেকে দুঃশাসন ও স্বৈরশাসন চালাচ্ছে আওয়ামী লীগ। তারা নানা ষড়যন্ত্র করে বিনা ভোটে ক্ষমতা দখলে রেখে দেশটাকে চুষে খাচ্ছে। তবে বর্তমানে সরকারের জন্য বিএনপি আতঙ্ক হয়ে দাঁড়িয়েছে। কারণ, এই দলের নেতৃত্বে সরকারের দুর্নীতি, লুটপাট ও শোষণের বিরুদ্ধে দেশবাসী ঐক্যবদ্ধ হয়েছে।

বৃহস্পতিবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে 'আরাফাত রহমান কোকো ক্রীড়া সংসদ'-এর প্রথম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন। সভাটি আয়োজন করে আরাফাত রহমান কোকো ক্রীড়া সংসদ। সংগঠনের সভাপতি নাজিম উদ্দিন আলমের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক কৃষিবিদ শামীমুর রহমান শামীমের সঞ্চালনায় সভায় বক্তব্য দেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল আউয়াল মিন্টু। সভা শুরুর আগে বনানী কবরস্থানে আরাফাত রহমান কোকোর কবর জিয়ারত করেন সংগঠনের নেতারা। পরে অনুষ্ঠান শেষে শিশুদের মধ্যে খাবার ও ক্রীড়াসামগ্রী বিতরণ করা হয়।

বিএনপির গণসমাবেশ নিয়ে সরকার বেসামাল- রিজভী : ১০ ডিসেম্বর বিএনপির ঢাকা বিভাগীয় গণসমাবেশ নিয়ে অবৈধ সরকার যেন বেসামাল হয়ে পড়েছে বলে মন্তব্য করেছেন দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। তিনি বলেন, 'সমাবেশ ঠেকাতে নেতাকর্মীকে গণগ্রেপ্তার, মিথ্যা কাহিনি সাজিয়ে পাইকারিহারে মামলা দায়ের, গভীর রাতে বাড়িতে ডাকাতের মতো হানা দেওয়া হচ্ছে।' আজ রাজধানীর নয়াপল্টনে দলীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

এর আগে রাজধানীর মোহাম্মদপুর এলাকায় বরিশালের বাকেরগঞ্জের ছাত্রদল নেতা নাহিদ হোসেন শাওনের কৃত্রিম পা সংযোজন শেষে এক অনুষ্ঠানে অংশ নেন রুহুল কবির রিজভী। শাওনকে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান এই কৃত্রিম পা সংযোজনের ব্যবস্থা করেছেন বলে রিজভী জানান।