জার্নাল জালিয়াতির দায়ে পাবিপ্রবি শিক্ষকের পদোন্নতি বাতিল

প্রকাশ: ০৯ জুলাই ২০১৯     আপডেট: ০৯ জুলাই ২০১৯      

পাবনা অফিস

ফাইল ছবি

জার্নাল জালিয়াতি করায় পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের লোক প্রশাসন বিভাগের এক শিক্ষকের পদোন্নতি বাতিল করা হয়েছে। সম্প্রতি বিশ্ববিদ্যালয়ের সর্বোচ্চ পরিষদ রিজেন্ট বোর্ড সভায় এই সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। 

পাবিপ্রবি সূত্রে জানা গেছে, অতি সম্প্রতি বিশ্ববিদ্যালয়ের লোক প্রসাশন বিভাগের প্রভাষক সানজিদা রহমান পদোন্নতির জন্যে আবেদন করেন। পদোন্নতির শর্তাদি পুরণের জন্যে শিক্ষকতার বয়সকাল ও জার্নাল পাবলিকেশন্সের প্রয়োজন হয়। তার শিক্ষকতার বয়সকাল নিয়মানুযায়ী ঠিক করলেও তিনি জার্নাল পাবলিকেশন্সের ব্যাপারে দূর্নীতির আশ্রয় গ্রহণ করেন বলে অভিযোগ ওঠে। ওই শিক্ষক কয়েকটি অখ্যাত ও ফেক জার্নালে তার পাবলিকেশন্স প্রকাশের কপি জমা দেন। সেই জার্নালেও বানান ও তথ্যের ভুল ছিল। এ নিয়ে পাবিপ্রবি শিক্ষকদের মধ্যে সমালোচনার ঝড় ওঠে। তবুও বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ তাকে পদোন্নতি দিতে আগ্রহ প্রকাশ করে। পরে একটি বোর্ডের মাধ্যমে তাকে পদোন্নতিও দেওয়া হয়। ওই বোর্ড সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে যে সঠিক ও গ্রহণযোগ্য মাধ্যমে জার্নাল প্রকাশের শর্তে আগামী ৬ মাস পর থেকে তার পদোন্নতি কার্যকর হবে। 

তবে গত ৬ জুলাই পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সর্বোচ্চ নীতি নির্ধারনী ফোরাম রিজেন্ড বোর্ড সভায় তার পদোন্নতির বিষয়টি আবারও আলোচিত হয় এবং আগের সভায় পদোন্নতির সিদ্ধান্ত বাতিল করা হয়। 

পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর ড. এম রোস্তম আলীম বলেন, লোক প্রসাশন বিভাগের প্রভাষক সানজিদা রহমানের আপগ্রেডেশন বাতিল করা হয়েছে। পুনরায় সকল শর্তাদি পুরণ করার পর বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ তার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবে।

এ ব্যাপারে পাবিপ্রবির লোক প্রসাশন বিভাগের প্রভাষক সানজিদা রহমানের সঙ্গে মোবাইলে যোগাযোগ করা হলে ফোন রিসিভ করেননি তিনি।