চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডের কুমিরায় আন্তর্জাতিক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় (আইআইইউসি) ক্যাম্পাসে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছবি ভাঙচুর মামলায় জামায়াত নেতা ও সাবেক সংসদ সদস্য আ ন ম শামসুল ইসলামসহ ছয়জনকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত। মঙ্গলবার চট্টগ্রাম জেলা ও দায়রা জজ মো. ইসমাইল হোসেনের আদালত এ আদেশ দেন। কারাগারে পাঠানো অন্য আসামিরা হলেন- অধ্যাপক আহসান উল্লাহ চৌধুরী, ড. মাহবুব রহমান, ড. কাওসার, মো. শফিকুল আলম ও নিজাম উদ্দিন।

চট্টগ্রাম জেলা পিপি অ্যাডভোকেট এ কে এম সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী ও অতিরিক্ত জেলা পিপি অ্যাডভোকেট লোকমান চৌধুরী জানান, হাইকোর্টের জামিন শেষে আসামিরা নিম্ন আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করেছিলেন। শুনানি শেষে তাদের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন আদালত।

দক্ষিণ জেলা যুবলীগের সহ-আইনবিষয়ক সম্পাদক কামাল উদ্দীন গত ১০ ফেব্রুয়ারি রাতে সীতাকুণ্ড থানায় মামলাটি করেন। মামলার এজাহারে বাদী উল্লেখ করেন, গত ২৯ জানুয়ারি সকাল ১০টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে ছাত্রলীগের কার্যালয়ে বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি ভাঙচুর করে জামায়াত-শিবিরের ক্যাডাররা। খবর পেয়ে তিনি ক্যাম্পাসে গিয়ে ছবি ভাঙচুরের বিষয়ে জিজ্ঞাসা করলে তারা তাকে হত্যা করে লাশ গুমের হুমকি দেয়। এরপর তিনি মামলাটি করেন।

ওই ঘটনায় সীতাকুণ্ড থানার পক্ষ থেকে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলার অনুমতি চেয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আবেদন করা হয়েছে। অনুমতি পেলে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলার কার্যক্রমও চলবে বলে জানা গেছে।