জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে (জবি) ভর্তি পরীক্ষা দিতে আসা শিক্ষার্থীদের ফুল ও কলম দিয়ে স্বাগত জানানোর সময় ছাত্রদলের নেতাকর্মীদের ওপর হামলা চালিয়েছে ছাত্রলীগ। 

রোববার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের তিন নম্বর গেটের সামনে এ ঘটনা ঘটে। এ সময় ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীরা ভীত-সন্ত্রস্ত হয়ে পড়েন।

জানা গেছে, বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রদলের আহ্বায়ক পদপ্রার্থী মেহেদী হাসান হিমেল এবং অন্য নেতাকর্মীরা পরীক্ষার্থীদের সহযোগিতা করছিলেন। এ সময় ছাত্রলীগের সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির আহ্বায়ক আশরাফুল ইসলাম টিটন ও যুগ্ম আহ্বায়ক জামাল উদ্দিনের নির্দেশে মফিজুর রহমান হামিম, শেখ রাসেল, নাজমুল হাসান মুন্না, মেহেদী হাসান, নওশের বিন আলম ডেভিডসহ কয়েকজন তাদের ওপর অতর্কিতে হামলা চালান। এতে গুরুতর আহত হন ছাত্রদল নেতা হিমেল ও শাহরিয়ার হোসেন।

হামলার বিষয়ে জবি ছাত্রদলের আহ্বায়ক প্রার্থী মেহেদী হাসান হিমেল বলেন, ছাত্র সংগঠন হিসেবে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের সহযোগিতা করা আমাদের নৈতিক দায়িত্ব। আমরা যখন শিক্ষার্থীদের মাস্ক, কলম ও ফুল দিয়ে স্বাগত জানাচ্ছিলাম, তখন ছাত্রলীগ আমাদের ওপর হামলা করে। এ হামলাই প্রমাণ করে, তারা কখনও শিক্ষার্থীবান্ধব ছিল না।

হামলার বিষয়ে ছাত্রলীগের আশরাফুল ইসলাম টিটন বলেন, ভর্তি পরীক্ষার দিন বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার পরিবেশ নষ্ট করতে এসেছিল ছাত্রদল। শিক্ষার্থীদের যাতে কোনো রকম ক্ষতি না হয় সে জন্য আমাদের নির্দেশে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা ছাত্রদলকে রুখে দিয়েছে।