৪৪তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা আগের নির্ধারিত তারিখে (২৭ মে) অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছে সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি)। শনিবার সন্ধ্যায় পিএসসির একটি সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

সম্প্রতি সিলেটে বন্যার কারণে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় বিসিএস প্রিলিমিনারি পরীক্ষা হওয়া নির্ধারিত তারিখে অনুষ্ঠিত হওয়া নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে শঙ্কা প্রকাশ করছেন অনেক পরীক্ষার্থী। তবে পিএসসির পক্ষ থেকে জানানো হয়, পরীক্ষা পেছানোর সুযোগ নেই। নির্ধারিত তারিখেই পরীক্ষা গ্রহণের সব প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছে।

পিএসসি জানিয়েছে, সিলেট বিভাগের বন্যা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে। পরীক্ষা নেওয়ার মতো পরিস্থিতি হলে সিলেট বিভাগেও ২৭ মে প্রিলিমিনারি পরীক্ষা পরীক্ষা নেওয়া হবে।

তবে পরিস্থিতি খারাপ হলে প্রথমে কেন্দ্র পরিবর্তনের চেষ্টা করবে পিএসসি। কেন্দ্র পরিবর্তন করেও কাজ না হলে সিলেট বিভাগ বাদ দিয়ে বাকি বিভাগগুলোতে ২৭ মে পরীক্ষা নেওয়া হবে।

গত বছরের ৩০ ডিসেম্বর ৪৪তম বিসিএসের অনলাইন আবেদন শুরু হয়। প্রথম দফায় আবেদনের শেষ সময় ছিল ৩১ জানুয়ারি। এরপর তা বাড়িয়ে ২ মার্চ নির্ধারণ করে পিএসসি। ৪৪তম বিসিএসে মোট আবেদন করেছেন ৩ লাখ ৫০ হাজার ৭১৬ জন।

৪৪তম বিসিএসের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, এই বিসিএসে বিভিন্ন ক্যাডারে ১ হাজার ৭১০ জন কর্মকর্তা নেওয়া হবে। এর মধ্যে প্রশাসন ক্যাডারে ২৫০ জন, পুলিশ ক্যাডারে ৫০, পররাষ্ট্র ক্যাডারে ১০, আনসার ক্যাডারে ১৪, নিরীক্ষা ও হিসাবে ৩০, করে ১১, সমবায়ে ৮, রেলওয়ে পরিবহন ও বাণিজ্যিকে ৭, তথ্যে ১০, ডাকে ২৩, বাণিজ্যে ৬, পরিবার পরিকল্পনায় ২৭, খাদ্যে ৩, টেকনিক্যাল ক্যাডারে ৪৮৫ ও শিক্ষা ক্যাডারে ৭৭৬ জন নেওয়া হবে।

প্রিলিমিনারি পরীক্ষার বিষয় ও নম্বর বণ্টন:

বাংলা ভাষা ও সাহিত্য ৩৫, ইংরেজি ভাষা ও সাহিত্য ৩৫, বাংলাদেশ বিষয়াবলি ৩০, আন্তর্জাতিক বিষয়াবলি ২০, ভূগোল (বাংলাদেশ ও বিশ্ব), পরিবেশ ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ১০, সাধারণ বিজ্ঞান ১৫, কম্পিউটার ও তথ্যপ্রযুক্তি ১৫, গাণিতিক যুক্তি ১৫, মানসিক দক্ষতা ১৫, নৈতিকতা, মূল্যবোধ ও সুশাসনের ওপর ১০ নম্বরের পরীক্ষা হবে।