সৃজিত সম্পর্কে কথা বললেই থাপ্পড়: মিথিলা

প্রকাশ: ১৪ জানুয়ারি ২০২০   

অনলাইন ডেস্ক

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

সব জল্পনার অবসান ঘটিয়ে ডিসেম্বরে টালিউড নির্মাতা সৃজিত মুখার্জিকে বিয়ে করেন ঢালিউড অভিনেত্রী রাফিয়াত রশিদ মিথিলা।

বিয়ের আগে পর্যন্ত তারা কেউই প্রকাশ্যে প্রেমের কথা স্বীকার করেননি। বিয়ের পর থেকে তাদের নিয়ে নানা ধরনের ট্রল করতে থাকেন নেটিজেনদের একাংশ। নেটিজেনদের কেউ কেউ জানতে চান   মিথিলা মুসলিম হয়ে কেন একজন হিন্দুকে বিয়ে করলেন, কোন স্বার্থে বিয়ে করলেন। এসব বিষয় নিয়ে উত্তাল হয়ে ওঠে সোশ্যাল মিডিয়া। এমনকী তাদের বিয়ে নিয়ে অনেক ভুল বার্তাও ছড়ানো হয়। 

গুঞ্জনের মধ্যেই আইনি বিবাহ সেরেই মিথিলা আর সৃজিত উড়ে যান জেনিভায়। সেখানে পিএইচডির রেজিস্ট্রেশন সেরে দুজনে গ্রিসে যান হানিমুনে। ফিরে এসে যে যার মতো ব্যস্ত কাজে। কিন্তু মিথিলার দিকে আঙুল তোলা বন্ধ হয় না। এতদিন তিনি কিছু বলেননি, এবার আর মুখ বন্ধ রাখতে পারলেন না মিথিলা। স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন, 'আমি কোনও হিন্দু বা কোনও পরিচালকে বিয়ে করিনি। আমি এমন একজনকে বিয়ে করেছি যিনি মেধাবী। আমি জানি তিনি আমাকে ভালো রাখবেন। আর আমি তাকে খুব ভালোবাসি। এরপর আমার বিয়ে বা আমার স্বামী সম্পর্কে কোনও কথা বললেই কষিয়ে এক থাপ্পড়'।

তবে মিথিলার এই টুইটে সৃজিত মজা করে লেখেন, 'অনেক হয়েছে পাগলি, এবার কাঁদাবি নাকি?' বেশিরভাগ নেটিজেনরাও মিথিলার হয়েই কথা বলেছেন। কেউ বলেছেন বাঙালি বাঙালিকে বিয়ে করেছেন, আবার কেউ বলেছেন যে আপনাকে ভালো রাখবেন অবশ্যই আপনি তার সঙ্গে থাকবেন। উঠে এসেছে অশিক্ষা, ঘৃণা এবং নারীবিদ্বেষের প্রসঙ্গও। 

বিয়ের সময় সৃজিত পরেন পাজামা, পাঞ্জাবি ও জহরকোট। মিথিলা পরেন লাল জামদানি। বিয়েতে মিথিলার বাবা-মা ও মেয়ে আয়রাসহ পরিবারের অন্য সদস্য এবং সৃজিতের মা ও বোন ছাড়াও টালিউড তারকা রুদ্রনীল, শ্রীজাত, ইন্দ্রদীপ, যিশু, নীলাঞ্জনা, অনুপম, পিয়া উপস্থিত ছিলেন। সূত্র: এই সময়