সুখে-দুঃখে আবুল হায়াত-শিরিনের ৫০

প্রকাশ: ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০     আপডেট: ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০   

বিনোদন ডেস্ক

ছোট পর্দার কিংবদন্তি অভিনেতা আবুল হায়াত। ১৯৭০ সালের ৪ ফেব্রুয়ারি মেজ বোনের ননদ মাহফুজা খাতুন শিরিনের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন তিনি। সুখে-দুঃখে এ দম্পতি মঙ্গলবার ৫০ বছর পূর্ণ হলো। 

এ দম্পতির দুই সন্তান বিপাশা ও নাতাশা রাতেই তাদের বাবা-মাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। শোবিজ অঙ্গনে যখন একের পর এক ভাঙনের খবর শোনা যায়: অন্যদিকে তিনি এই সমাজে দারুণ দৃষ্টান্ত দেখিয়েছেন তিনি।

আবুল হায়াতে দুই মেয়ে অভিনেত্রী বিপাশা হায়াত ও নাতাশা হায়াত। তারা দুজনেই অভিনয়ের সঙ্গে যুক্ত। তৌকীর আহমেদ ও শাহেদ শরীফ খান তার দুই জামাতা

বুয়েটে পড়াশোনা শেষে দেশ স্বাধীনের আগে নাটকের দলের সঙ্গে যুক্ত হন তিনি। আর দেশ স্বাধীনের পর অভিনয় শুরু করেন চলচ্চিত্রে। সেই থেকে এখনো চলছে। সুযোগ পেলেই তিনি অভিনয় করেন। জীবনের গুরুত্বপূর্ণ এই দিনটিতে তিনি তার ও স্ত্রী-সন্তানদের জন্য দোয়া চেয়েছেন সবার কাছে।

উল্লেখ্য, আবুল হায়াত দীর্ঘদিন ধরেই টিভি নাটক ও সিনেমায় কাজ করে চলেছেন। মঞ্চ নাটক ও টিভিসিতেও দেখা গেছে তাকে নিয়মিত। জনপ্রিয় লেখক হুমায়ুন আহমেদ রচিত প্রচুর নাটকে তিনি অংশ নিয়ে জনপ্রিয়তা পেয়েছেন। অভিনয়ের পাশাপাশি তিনি লেখালেখির সঙ্গেও যুক্ত তিনি।