দিনের শুরুতে নিজের ছবি পোস্ট করে টালিউড অভিনেত্রী শ্রীলেখা মিত্র লিখেছেন, ‘আমার চোখে হারাও, ক্লিভেজ দেখার জন্য সময় পাবে’। আপাতদৃষ্টিতে দেখে মনে হতে পারে নিছক মজা করার জন্যই এই পোস্ট করেছেন অভিনেত্রী, কিন্তু বাস্তাবে সেটি নয়। এ বিষয়ে আনন্দবাজারকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে শ্রীলেখা বলেন, এই ছবিতে আমার ক্লিভেজ বেরিয়ে আছে। কিন্তু আমার প্রশ্ন, ছবি তোলার জন্য ক্লিভেজ ঢাকতে হবে কেন! আগে আমার চোখের দিকে তাকাও। তারপর আমার ক্লিভেজের দিকে তাকাবে।

নারীর সৌন্দর্যকে উপভোগ করার মধ্যে কোনও অন্যায় দেখেন না শ্রীলেখা। কিন্তু সেই সৌন্দর্য দেখার নামে ‘নোংরামি’ বরদাস্ত করতে রাজি নন তিনি। শ্রীলেখা মনে করেন, শালীন-অশালীন নির্ভর করে নারীপুরুষ নির্বিশেষে মানসিকতার ওপর। তাই কোনও নারী শাড়ি পরলেও তাকে খারাপ কথা শুনতে হতে পারে, আর খোলামেলা পোশাক বেছে নিলেও তাকে ‘চরিত্রহীন’ বলা হয়।  

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, অনেকেই আমাকে নিয়ে অনেক আজেবাজে কথা বলেন। আমার কোন ধরনের পোশাক পরা উচিৎ বা উচিৎ না, সেই বিষয়েও পরামর্শ দেন। কিন্তু তুমি কে ভাই? আমার শরীর, ইচ্ছা হলে আমি দেখাব। কিন্তু আমার ক্লিভেজ অবধি পৌঁছতে গেলে, আগে আমার মন ছুঁতে হবে।

যৌনতা নিয়ে বরাবরই অকপট শ্রীলেখা। তবে বাস্তবের ছবিটাও অভিনেত্রীর অজানা নয়। সেই ছবিতে যদিও কোনও রকম পরিবর্তন আনতে চাননি তিনি। তার কথায়, জানি অনেক পুরুষ আমাকে নিয়ে ফ্যান্টাসাইজ করেন। এই বয়সেও আমি যদি কারও ফ্যান্টাসির বিষয় হই, তা হলে তা তো ভাল লাগার বিষয়।