'আমার এখন সিনেমায় অভিষেকের অপেক্ষায় সময় কাটছে। বড় আয়োজনের সিনেমা হওয়ায় কাজ করতে গিয়ে অনেক পরিশ্রম করতে হয়েছে। আমার বিশ্বাস, দর্শকদের জন্য আরও একটি চমৎকার সিনেমা অপেক্ষা করছে।' প্রথম ছবির মুক্তি নিয়ে এভাবেই উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন মডেল অভিনেত্রী জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী।

আসছে ঈদে তার অভিনীত ছবি 'মিশন এক্সট্রিম' মুক্তি পাবে। এখন বেশ ফুরফুরে মেজাজে আছেন তিনি। আনন্দের মাত্রা আরও বাড়িয়ে দিয়েছে এই ছবির 'জানি তুমি ছিলে' গানের লিরিক্যাল ভিডিও। গেল ভালোবাসা দিবসে এটি প্রকাশ হয়। ঐশী বলেন, গানটি আমার অনেক পছন্দের। গানের রেসপন্সও ভালো। সবাই এর ভিডিও দেখতে চাচ্ছেন। মরুভূমির উত্তপ্ত বালুর মাঝে রোদে ছবির শুটিং করেছি। কতটা কষ্ট করেছি দর্শক পর্দায় দেখলেই বুঝতে পারবেন। 

ফয়সাল আহমেদ ও  সানী সানোয়ারের পরিচালনায় 'মিশন এক্সট্রিম' ছাড়াও তার হাতে রয়েছে আবু তাওহীদ হিরণের পরিচালনায় 'আদম', মীর সাব্বিরের পরিচালনায় 'রাত জাগা ফুল' ছবি। সরকারি অনুদানের 'রাত জাগা ফুল' ছবির শুটিং অনেক আগেই শেষ করেছেন তিনি। এখন ব্যাকগ্রাউন্ড মিউজিক ও সম্পাদনার কাজ চলছে। আর 'আদম' ছবির কিছু কাজ বাকি আছে বলে জানান তিনি। কথায় কথায় নতুন ছবিতে অভিনয়ের প্রসঙ্গ তুলে ধরলেন এই অভিনেত্রী। তিনি বলেন, 'অনেক ছবির প্রস্তাব আসছে। অনেক স্ক্রিপ্ট হাতে এসেছে। সেগুলো যাচাই-বাছাই করছি। এ মুহূর্তে নতুন ছবিতে অভিনয় নিয়ে খুব ভাবছি না। আরও একটু সময় নিতে চাই।'

ঐশী এখন ব্যস্ত রয়েছেন পড়াশোনা নিয়ে। ক্লাস, পরীক্ষা, অ্যাসাইনমেন্টের মধ্যে ডুবে আছেন তিনি। এখন অনেক অভিনয়শিল্পী ওয়েব প্ল্যাটফর্মে কাজ করছেন। ঐশীর কাজের ইচ্ছা আছে কিনা জানতে চাইলে যা বলেন, তাতে বোঝা যায় ওয়েব ছবিতে তার কাজের আগ্রহ রয়েছে। প্রথম ছবি 'মিশন এক্সট্রিম'-এর মুক্তির পরই তিনি ওয়েব ছবিতে কাজ করতে চান।

ঐশী বলেন, 'লকডাউনে ওয়েব ছবির অফার পেয়েছি, গল্প পছন্দ হওয়ার পরও কাজ করিনি। কাজ করলে এতদিনে তা মুক্তিও পেত। করিনি কারণ, আমি তো শুরু করেছি বড় পর্দা দিয়ে। অভিষেক সিনেমা এখনও মুক্তি পায়নি। আমার প্রত্যাশা দর্শক প্রথমে আমাকে বড় পর্দায় দেখুক'।

অভিনয় নিয়ে স্বপ্নের কথাও জানালেন তিনি। 'ক্যামেরার সামনে দাঁড়িয়ে এখনও শিখছি। ভিন্ন ধাঁচের গল্প খুঁজছি প্রতিনিয়ত। এই বিশ্বাস থেকে চেষ্টা করে যাচ্ছি ব্যতিক্রমী কাজের মধ্য দিয়ে দর্শকের কাছাকাছি যাওয়ার। একই সঙ্গে অভিনয় দিয়েও কুড়াতে চাই সবার ভালোবাসা।'