'চরিত্রটি বঙ্গবন্ধুর বোনের জামাতা সৈয়দ নুরুল হকের। বুঝতেই পারছেন কতটা গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র। কতটা ঐতিহাসিক তাৎপর্যপূর্ণ চরিত্র। নব্বই বছর আগের এমন একটি চরিত্রে অভিনয়ের জন্যই আজ চুক্তিবদ্ধ হলাম।' বলছিলেন চিত্রনায়ক নিরব। 

‘টুঙ্গিপাড়ার দুঃসাহসী খোকা’ নামের একটি চলচ্চিত্রে বৃহস্পতিবার এফডিসিতে চুক্তিবদ্ধ হওয়ার পর ছবিটিতে তার চরিত্র নিয়ে এভাবে বললেন 'আব্বাস' খ্যাত নায়ক নিরব। 

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছেলেবেলা নিয়ে নির্মিত হচ্ছে ‘টুঙ্গিপাড়ার দুঃসাহসী খোকা’। সরকারি অনুদানের এ চলচ্চিত্র নির্মাণ করছেন মুশফিকুর রহমান গুলজার।  ছবিটিতে  বঙ্গবন্ধু’র কিশোর কালের চরিত্রে অভিনয় করতে যাচ্ছেন সৌম্য।  সিনেমাটিতে সৌম্য  মূলত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১৬ থেকে ২০ বছরের চরিত্রে অভিনয় করবেন। 

এ ছবিটির অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র হচ্ছে  সৈয়দ নুরুল হক। এই চরিত্রটিতে আজ চুক্তিবদ্ধ করানো হলো নিরবকে। 

ছবিটি দশ বছর কাজ করে আসছিলেন পরিচালক মুশফিকুর রহমান গুলজার। সব প্রস্তুতি শেষ অবশেষ সরকারী অনুদানের জমা দিলে ২০১৯-২০ অর্থবছরে  ৭০ লাখ টাকা অনুদান পায় ছবিটি। ইতোমধ্যে সৌম্য ও অন্যান্য আর্টিস্ট নিয়ে ছবিটির প্রথম লটের শুটিং হয়। এবার দ্বিতীয় লটের শুটিং শুরু হচ্ছে। তার আগেই যুক্ত হলেন নিরব।

ছবিটির নিয়ে নিরব বলেন, 'গুলজার ভাই দারুণ একজন মানুষ। তার দীর্ঘদিনের চেষ্টার ফল হচ্ছে 'টুঙ্গিপাড়ার দুঃসাহসী খোকা'। এমন একটি ঐতিহাসিক ছবিতে ঐতিহাসিক চরিত্রে আমাকে চূড়ান্ত করার জন্য গুলজার ভাইয়ের কাছে কাছে কৃতজ্ঞ আমি। চরিত্রটি নিয়ে এখন আমি স্টাডি করছি। নিজের মধ্যে  সৈয়দ নুরুল হককে কিভাবে ফুটিয়ে তোলা যায় সে চেষ্টাই করছি। আশা করি চরিত্রটি ভালোভাবেই ধারণ করতে পারবো।'