শুক্রবার দিবাগত রাতে হুট করে  কণ্ঠশিল্পী বাঁধন সরকার পূজার স্বামী অর্ণব অন্তু তার ফেসবুক পোস্টে লিখেন, 'মহানের কাছে সুস্থ এবং সুন্দর জীবনের কামনা করে আমাদের সাংসারিক যাত্রা আমার পক্ষ থেকে এখানেই ইতি টানলাম। ভালো থেকো।'

স্ট্যাটাসে পূজাকে ট্যাগও করেন তিনি। এরপরই তাদের বিচ্ছেদের খবর ছড়িয়ে পড়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। গণমাধ্যমে পূজা ও মডেল অর্ণব অন্তুর ৪ বছরের সংসারের ইতি টানার খবরও প্রকাশিত হয়।  

বিচ্ছেদের খবরের বিষয়ে শনিবার যোগাযোগ করা হয় পূজার সঙ্গে। সমকালকে তিনি বলেন, ' অন্তুর সঙ্গে তো আমার বিচ্ছেদ হয়নি। আমি এখনও মিসেস অন্তুই আছি।' 

বিচ্ছেদের বিষয়ে অন্তুর স্ট্যাটাস নিয়ে কিছুই জানেন না পূজা। বললেন, গতকাল সন্ধায়ও অন্তুর সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। এমন স্ট্যাটাস দেবে তা তো তখনও জানতাম না। জানিনা এমন স্ট্যাটাস সে কেনো দিলো। তবে আমার পক্ষ থেকে ডিভোর্সের কোনো পরিকল্পনা নেই।'

দীর্ঘদিন প্রেমের পর ২০১৭ সালের ১ ফেব্রুয়ারি দু’পরিবারের উপস্থিতিতে ধুমধাম করে বিয়ে করেন পূজা-অন্তু। বিয়েতে শুধু পরিবার নয় উপস্থিত ছিলেন সঙ্গীত অঙ্গনের অনেক তারকা।

তবে সম্প্রতি সময়ে পারিবারিক কলহের কারণে উভয় থাকছেন আলাদা। তাদের মধ্যেকার দ্বন্দ্ব পরিবারিকভাবে মিটমাটের চেষ্টা চলছে। সব মিটিয়ে আবার একই ছাদের নীচে থাকা হবে বলেই প্রত্যাশা করছেন গায়িকা পূজা। 

তবে অন্তু যদি তাকে ডিভোর্স দিতে চায় তাহলে অফিসিয়ালভাবে দুই পরিবারের সিদ্ধান্তেই দিতে হবে বলে মন্তব্য পূজার। তা না করে  এভাবে হুটহাট স্ট্যাটাস দেওয়াটা উচিত হয়নি বরেই জানান পূজা।