বিপদে না পড়লে ব্রেন্ডন ম্যাককালামকে টেস্ট দলের কোচ করেনি ইংল্যান্ড। সঙ্গে জো রুটকে সরিয়ে নেতৃত্বে দেওয়া হয়েছে বেন স্টোকসকে। ওয়েস্ট ইন্ডিজে যে দল টেস্ট সিরিজ হেরেছে। তারাই ঘরের মাঠে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ জয়ী নিউজিল্যান্ডকে তিন টেস্টের সিরিজে ধবলধোলাই করেছে। 

এবার এজবাস্টনে ম্যাককালাম-স্টোকস জুটির চ্যালেঞ্জ ভারতের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে হার এড়ানো। পাঁচ টেস্টের সিরিজে ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে থেকে আগামী ১ জুলাই মাঠে নামবে ভারত। ওই ম্যাচের আগে সাবেক কিউই তারকা বললেন, ইংল্যান্ড বিপদ ঘণ্টা বাজিয়ে দিয়েছে। মেঘ কেটে রোদ উঠে গেছে দলটির আকাশে। 

ম্যাককালাম বলেছেন, ‘টেস্ট চ্যাম্পিয়নরা (কিউই) কঠিন এক প্রতিপক্ষ। তাদের বিপক্ষে আমাদের এই পারফরম্যান্সে হয়তো বিশ্ব ক্রিকেটে বিপদ ঘণ্টা বেজে গেছে। এবার ভিন্ন এক প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে আমাদের প্রমাণ করতে হবে যে, আমরা খুঁটিনাটি গবেষণা করে, পরিকল্পনা করে এবং প্রস্তুতি নিয়েই খেলতে নেমেছি।’ 

ইংল্যান্ডের ওয়ানডে দল আগ্রাসী ক্রিকেট খেলছে। ওই পথে পা বাড়িয়ে দিয়েছে টেস্ট দলও। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে তিন টেস্টেই চতুর্থ ইনিংসে যথাক্রমে ২৭৭, ২৯৯ ও ২৯৬ রান তাড়া করে জিতেছে। ওভার প্রতি ওই তিন ইনিংসে গড়ে ৪.৫ করে রান তুলেছে। ম্যাককালাম স্মরণ করিয়ে দিলেন, এই ব্র্যান্ড অব ক্রিকেটে ভয় আছে। তবে প্রাপ্তিই বেশি হবে। 

তিনি বলেন, ‘আমাদের বিশ্বাসের ওপর দৃঢ় থাকতে হবে। কঠিন সময়ে শক্ত থাকতে হবে। খারাপ পারফরম্যান্স ভুলতে পরিশ্রম করতে হবে। স্টোকস খুবই ভালো অধিনায়ক এবং তাকে উপযুক্ত সময়ে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। আগ্রাসনের দিক থেকে সে আমাকেও ছাড়িয়ে গেছে। সে নেতৃত্বে এবং ব্যাটে-বলে জানান দিয়েছে যে, আমরা খেলছি।’