ঢাকা সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪

১০ দিন ধরে রাজ আমার বাসায় নেই: পরীমণি

১০ দিন ধরে রাজ আমার বাসায় নেই: পরীমণি

চিত্রনায়িকা পরীমণি

বিনোদন প্রতিবেদক

প্রকাশ: ৩০ মে ২০২৩ | ১১:১৯ | আপডেট: ৩০ মে ২০২৩ | ১৫:২৫

অভিনেতা শরীফুল রাজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে সোমবার মধ্যরাতে আপলোড হয় অভিনেত্রী তানজিন তিশা, নাজিফা তুষি ও  সুনেরাহ বিনতে কামালের ব্যক্তিগত মুহূর্তের কিছু ছবি ও ভিডিও ক্লিপস। সুনেরাহ দাবি করেছেন, ভিডিওগুলো পরীমণি নিজেই রাজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে পোস্ট করেছেন। কিন্তু পরীমণি বলছেন, ভিন্ন কথা। এইসব ঘটনা নিয়ে কথা হয় পরীমণির সঙ্গে

রাজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে কিছু ভিডিও পোস্ট করা হয়। অভিনেত্রী সুনেরাহ বলছেন ভিডিওগুলো আপনিই পোস্ট করেছেন...

সুনেরাহ কে? ওই মেয়েকে তো আমি চিনিই না! ওর সঙ্গে আমার কখনো কথাই হয়নি। হুট করে কেনো সে আমাকে নিয়ে এমন মন্তব্য করবে? মনে হয় সে আলোচনায় আসতেই আমার নাম নিয়ে এসব বলছে। এখন যদি এই কারণে রাজের সঙ্গে আমার বিচ্ছেদ হয়, তাহলে আমি ওই মেয়েকেই দায়ি করব। ওর নামে আমি মামলা করব।

তার মানে আপনি ভিডিওগুলো পোস্ট করেননি?

আমি কিভাবে ওসব ভিডিও পোস্ট করব? রাজ তো ১০ দিন আগে থেকে আমার সঙ্গে নেই। সে রিফ্রেশেমেন্টের জন্য ১০ দিনের বেশি হলো বাসা থেকে বের হয়ে গেছে। কোথায় কি করছে কিছুই জানিনা। গতকালও ওকে ফোন করেছিলাম। সে ফোন কেটে বন্ধ করে দিয়েছে। এখন কোথায়, কার সঙ্গে কি করছে সে দায় কেনো আমার ওপর আসবে?

তাহলে রাজ আর আপনি এখন আলাদা থাকছেন?

রাজ বেশ ক’দিন আগেই বাসা থেকে বের হয়ে যায়। কোথায় আছে, কার সঙ্গে আছে তার কিছুই আমি জানি না। বার বার খোঁজ নেওয়ার চেষ্টা করেও পারিনি। পরে দেখি বন্ধুদের সঙ্গে পার্টি করার ছবি ফেসবুকে ঘুরে বেড়াচ্ছে। হুট করে গতকাল ভিডিও পোস্ট হল, আমার নাম জড়িয়ে আলোচনাতেও এলেন একজন।



তাহলে কী রাজই ওই ভিডিও পোস্ট করেছে?

বন্ধুদের সঙ্গে পার্টি করার সময় হতে পারে তার বন্ধুরাও মজা করার জন্য প্রকাশ করেছে। আবার আমার নাম জড়িয়ে যে সুনেরা আলোচনায় এলেন, হতে পারে তিনি আলোচনায় আসার জন্য ওই ভিডিও পোস্ট করেছেন। কারণ, তিনি তো নিজেকে রাজের বন্ধু দাবি করেছেন। ক’দিন আগে তো তারা একসঙ্গে পার্টির ছবিও পোস্ট করেন। 

রাজ বাসা থেকে চলে গেছেন কেনো?

স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে কতকিছুই তো হয়। তবে বাসা থেকে বের হওয়ার মত কিছু আমাদের হয়নি। অথচ রাজ বাসায় নেই কতদিন! এতো দিন বাইরে বাইরে ঘুরে বেড়াচ্ছে একটি বারও আমার ও বাচ্চার খোঁজ নেয়নি। হতে পারে বন্ধুদের নিয়ে ব্যস্ত ছিল, পার্টি করছিল। কিন্তু আমি মনে করি, বিয়ের পর এতটা ফ্রি থাকা উচিত নয়। অন্তত কিছুটা হলেও দায়িত্বশীল হওয়া উচিত। 

এইযে আলাদা থাকছেন, এটা তো বিচ্ছেদেরই ইঙ্গিত...

কি ইঙ্গিত দিচ্ছে সেটা বুঝতে পারছি না। কিন্তু আমি সংসার করার কম চেষ্টা তো করছি না, পারছি কই!  একটার পর একটা ইস্যু চলেই আসছে। তারপরও আমি যে রাজকে বিয়ে করেছিলাম সেই রাজকে অনেক ভালোবাসি। 

রাজের সঙ্গে মান-অভিমান চলাকালীন আপনার ‘মা’ ছবি মুক্তি পেয়েছে।  এই পরিস্থিতে মা ছবির প্রচারণায় আপনাকে দেখা গেল...

এই সিনেমাটা আমার কাছে বাচ্চা। একদম অন্তরের কাছের একটি সিনেমা। এই সিনেমার সঙ্গে আমার অনেক স্মৃতি জড়িত, আমার রাজ্য জড়িত। তাই যতটা পারছি ছবির প্রচারে সময় দিচ্ছি। 

 কাজে ফেরার পরিকল্পনা সম্পর্কে জানতে চাই....

আমি কিন্তু আড়ালে নেই, কাজের মধ্যেই আছি। তবে নতুন সিনেমার শুটিংয়ে ফিরতে আরও একটু সময় লাগবে। এই যেমন দুদিন আগে, মনে হচ্ছিলো যে আমি মানসিকভাবে প্রস্তুত কাজ করার জন্য। কিন্তু আমি যখন প্রমোশনের জন্য ঘর থেকে বাইরে পা রাখলাম, তখন মনে হল- না। আমি এখন কাজ করার জন্য রেডি না।বাচ্চা নিয়ে এই মুহূর্তে মুভ করাটা খুব কঠিন। যখন আরেকটু রিলাক্স হতে পারব তখন কাজ করব।



আরও পড়ুন

×