ঢাকা সোমবার, ২০ মে ২০২৪

স্মার্ট ডিভাইসে বাংলা অ্যাপ

স্মার্ট ডিভাইসে বাংলা অ্যাপ

আলাউদ্দিন আলাদিন

প্রকাশ: ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ | ১৮:০০ | আপডেট: ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ | ০৫:২০

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে মনের অভিব্যক্তি জানিয়ে পোস্ট, চ্যাটিং, মেসেজিংয়ে বাংলা এখন দারুণ জনপ্রিয়। বার্তা বিনিময়ও হচ্ছে বাংলাতে। কম্পিউটার-ল্যাপটপে তো বটেই, স্মার্টফোন কিংবা ট্যাবলেট পিসির মতো স্মার্ট ডিভাইস থেকেও অনায়াসে লেখালেখি করা যাচ্ছে বাংলায়। আর স্মার্ট ডিভাইসে মাতৃভাষা বাংলায় লিখে যোগাযোগের পথ সহজ করে দিয়েছে দারুণ কিছু অ্যাপ। এসব অ্যাপের কোনো কোনোটিতে কষ্ট করে না লিখলেও চলে। এসব অ্যাপ মুখে বললেও নিজে নিজেই টাইপ (স্পিচ টু টেক্সট ফিচার) করে নিচ্ছে বাংলা।

ইন্টারনেটে বাংলা লেখার পথিকৃৎ অভ্র
ইন্টারনেটে বাংলা লেখালেখির প্রসঙ্গ এলেই প্রথমেই আসবে অমিক্রোন ল্যাবের ডেভেলপ করা বাংলা সফটওয়্যার অভ্র কিবোর্ডের নাম। ইন্টারনেটে যে কোনো প্ল্যাটফর্মেই এখন মিলছে অভ্র কিবোর্ড। সর্বশেষ এসেছে অভ্রর আইওএস সংস্করণ। এটি ম্যাক কম্পিউটারে স্বচ্ছন্দে কাজ করে। অভ্র কিবোর্ডের সঙ্গে আকর্ষণীয় বেশ কিছু ফিচার রয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে- স্বয়ংক্রিয় সংশোধন, বানান পরীক্ষক, ডিফল্ট বাংলা ফন্ট নির্ধারণে ফন্ট ফিক্সার টুল, কিবোর্ড লেআউট এডিটর, ইউনিকোড থেকে আনসি রূপান্তর, বাংলা ইউনিকোড এবং আনসি ফন্টের সেট। ইন্টারনেটে বাংলা লেখার সবচেয়ে স্মার্ট অ্যাপ ধরা হয় অভ্রকে। বাংলা কিবোর্ড না জানলেও সমস্যা নেই। এতে ইংরেজিতে টাইপ করলে সেটি বাংলায় রূপান্তর হয়ে যায়।

বিজয় বাংলা
বিজয় অ্যান্ড্রয়েড ও লিনাক্স অপারেটিং সিস্টেমের জন্য হালনাগাদ সংস্করণ উপহার দিয়েছেন আনন্দ কম্পিউটার্সের প্রধান এবং বিজয় বাংলার রূপকার মোস্তাফা জব্বার। সমৃদ্ধতার ধারাবাহিকতায় ঋদ্ধ হয়েছে বিজয় ফন্ট। ছাপাকাজে নান্দনিকতা দিতে স্পর্শ করেছে শতক ফন্টের মাইলফলক। 'শিশুশিক্ষা-১' ও 'শিশুশিক্ষা-২'-এর ডিজিটাল সংস্করণ ছাড়াও ইন্টারনেটে শিশুশিক্ষাকে পরিবর্ধিত করতে নতুন ওয়েবসাইট-বিজয়ডিজিটাল.কম আত্মপ্রকাশ করে গত বছরে। শিশুশিক্ষায় বাংলা ভাষা ও প্রযুক্তির মেলবন্ধনে এভাবেই নানা উদ্যোগ বাস্তবায়ন করছেন মোস্তাফা জব্বার।

জিবোর্ড : গুগল কিবোর্ড
জিবোর্ড হচ্ছে লেখালেখির জন্য গুগলের নিজস্ব কিবোর্ড। জিবোর্ড লেখার জন্য অ্যান্ড্রয়েড ফোনের সবচেয়ে বেশি ব্যবহূত অ্যাপ। গুগল পেল্গ স্টোর থেকে অ্যাপটির ডাউনলোডে ৫০০ কোটির মাইলফলক ছাড়িয়েছে বেশ আগেই।

গুগলের নিজস্ব ডেভেলপকৃত অ্যাপটি ২০১৬ সালে উন্মোচিত হয়। এতে 'স্পিচ টু টেক্সট' প্রযুক্তি রয়েছে; যার মাধ্যমে কথা বললেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে লেখা হয়ে যায়। পাশাপাশি বাংলাসহ ১৫০টিরও বেশি ভাষায় সহজে টাইপ করা যায়। অ্যান্ড্রয়েডের পাশাপাশি অ্যাপটি আইফোনেও ব্যবহার করা যায়। অ্যাপ স্টোরে রেটিং ৪। অ্যাপটি সম্পর্কে রিভিউ রয়েছে ১ কোটি ২৪ লাখেরও বেশি। দ্রুত লেখার সুবিধাসম্পন্ন অ্যাপটিতে রয়েছে ইমোজি ও স্টিকার ব্যবহারের সুবিধা।

রিদমিক কিবোর্ড
দেশের তরুণদের ডেভেলপ করা রিদমিক কিবোর্ড হচ্ছে স্বচ্ছন্দে বাংলা লেখার অ্যাপ। গুগল প্লে স্টোরে এরই মধ্যে অ্যাপটি ডাউনলোড সংখ্যায় ৫ কোটি ছাড়িয়েছে। এতে লেখার জন্য 'প্রভাত', 'জাতীয়' লে আউট রয়েছে। এটিতে বাংলায় লেখালেখির জন্য সবচেয়ে জনপ্রিয় কিবোর্ড 'অভ্র' লে আউট ব্যবহার করা যায়। ফলে ইংরেজি কিবোর্ড দিয়ে বাংলা লেখা যায় খুব সহজে। রিদমিক কিবোর্ডে 'স্পিচ টু টেক্সট' প্রযুক্তির মাধ্যমে কথা বলেও বাংলা লেখার সুযোগ আছে। এতে বিজয় বাংলা ডেস্কটপ কিবোর্ডের মতো যেমন লেখা যাবে, তেমনি অভ্র কিবোর্ডের মতো ফোনেটিক টাইপ সুবিধাও রয়েছে। গুগল প্লে স্টোর থেকে বিনামূল্যের এ অ্যাপটি ডাউনলোড সংখ্যা প্রায় ৫ কোটি।

বাংলা কিবোর্ড
বাংলা ভাষায় লেখার কিবোর্ডগুলোর মধ্যে এই অ্যাপটিও জনপ্রিয়। বাংলা কিবোর্ড অ্যাপে কথা বলে বাংলা লেখার সুযোগ দিয়েছে। পাঠ্য স্টিকার নামে এই অ্যাপের একটি সুবিধাও আছে। এই স্টিকার দিয়ে বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কোনো বন্ধুকে আপনি বাংলা লিখে বার্তা পাঠালে সেটি স্টিকার হয়ে আপনার বন্ধুর কাছে যাবে। ৪.৫ রেটিং প্রাপ্ত অ্যাপটি প্লে স্টোর থেকে ১০ লাখেরও বেশিবার ডাউনলোড হয়েছে।

ইজি বাংলা কিবোর্ড
তাৎক্ষণিক বার্তা আদান-প্রদানে এই অ্যাপটি সত্যিই অসাধারণ। আপনি চাইলে কিছু বার্তা আগেই এতে তৈরি করে রাখতে পারেন। তৈরি করা বার্তাগুলো প্রয়োজনে দ্রুত নির্বাচন করে পাঠানো যাবে। নতুন করে টাইপ করতে হবে না। ফলে অনেক সময় বাঁচে। ২০১৫ সালে অবমুক্ত হওয়া অ্যাপটি এরই মধ্যে ১০ লাখেরও বেশিবার ডাউনলোড হয়েছে।

মায়াবী কিবোর্ড
মায়াবী বাংলা কিবোর্ডেও সহজে বাংলা লেখা যায়। এই অ্যাপে বাংলা ও ইংরেজি অভিধান যুক্ত থাকায় যে কোনো শব্দ লেখার ক্ষেত্রে যাচাই করে নেওয়া যায়। বাংলা লেখার জন্য এতে ইউনিজয় লেআউট রয়েছে। ২০১১ সালে অবমুক্ত হওয়া অ্যাপটির অ্যান্ড্রয়েড সংস্করণ এরই মধ্যে ১০ লাখেরও বেশিবার ডাউনলোড হয়েছে।

বাংলাদেশি কিবোর্ড
বাংলা টাইপিং দিয়ে সহজে বাংলা ও ইংরেজি লেখা যায়। এ ছাড়া কথা বলে লেখার সুবিধা আছে এতে। গুগল প্লে স্টোর থেকে এরই মধ্যে অ্যাপটি ৫ লাখেরও বেশিবার ডাউনলোড হয়েছে।

বেঙ্গলি ভয়েস টাইপিং কিবোর্ড
যে কোনো ভাষায় বলা কথা অনুবাদ করার জন্য এটি বেশ কাজের। এই অ্যাপ দিয়ে টাইপ করে আর কথা বলে বাংলা লেখা যায়। এ ছাড়া কথা বলে অনুবাদ করার সুবিধাও আছে অ্যাপটিতে। ২০১৯ সালে গুগল প্লে স্টোরে আসা অ্যাপটি এরই মধ্যে ৫০ লাখেরও বেশিবার ডাউনলোড করা হয়েছে।

আরও পড়ুন

×