তৈরি পোশাক উৎপাদক ও রপ্তানিকারকদের সংগঠন বিজিএমইএর সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন জিয়ান্ট গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফারুক হাসান। রোববার নির্বাচিত পরিচালকরা তাকে সভাপতি পদে নির্বাচন করেন। এ ছাড়া সাতজন সহসভাপতিও নির্বাচন করেছেন তারা।

গত ৪ এপ্রিল বিজিএমইএর ২০২১-২৩ মেয়াদের পরিচালনা পর্ষদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ওই নির্বাচনে ঢাকা ও চট্টগ্রামে ফারুক হাসানের নেতৃত্বাধীন প্যানেল সম্মিলিত পরিষদের ২৪ জন পরিচালক নির্বাচিত হন। অপর প্যানেল ফোরাম থেকে ১১ জন পরিচালক নির্বাচিত হয়েছেন। নির্বাচনে ফারুক হাসান সর্বোচ্চ ভোট পেয়ে পরিচালক হন। সংগঠনটির ৩৫ জন পরিচালক থেকে একজন সভাপতি ও সাতজন সহসভাপতি নির্বাচন করা হয়। সভাপতি ও সহসভাপতি নির্বাচনের কথা ছিল ১৬ এপ্রিল। কিন্তু সরকার ১৪ এপ্রিল থেকে চলাচল ও কার্যক্রমে বিধিনিষেধ আরোপ করায় তা এগিয়ে সোমবার অনুষ্ঠিত হয়।

বিজিএমইএর জ্যেষ্ঠ সহসভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন সেহা ডিজাইনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এস এম মান্নান কচি। প্রথম সহসভাপতি হয়েছেন চট্টগ্রাম অঞ্চল থেকে নির্বাচিত ওয়েল ডিজাইনারসের পরিচালক সৈয়দ নজরুল ইসলাম। এ ছাড়া ক্লাসিক গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শহীদুল্লাহ আজিম, ডিজাইনটেপ নিটওয়্যারের ব্যবস্থাপনা পরিচালক খন্দকার রফিকুল ইসলাম, মিসামী গার্মেন্টসের পরিচালক মিরান আলী, সাদমা ফ্যাশনওয়্যারের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. নাছির উদ্দিন এবং চট্টগ্রাম থেকে নির্বাচিত এইচকেসি অ্যাপারেলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক রকিবুল আলম চৌধুরী সহসভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন। আজ এ পরিচালনা পর্ষদ দায়িত্ব নেবে।

সভাপতি এবং সহসভাপতি পদে মনোনয়ন জমা দেওয়ার শেষ দিনে গত রোববার নির্বাচন পরিচালনা বোর্ডে এই আটজনের মনোনয়ন জমা দেওয়া হয়েছে। এসব পদে প্রতিপক্ষ প্যানেল ফোরাম থেকে কোনো প্রার্থী দেওয়া হয়নি। ফলে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন তারা। গত ৪ এপ্রিল অনুষ্ঠিত পরিচালক পদে নির্বাচনে এরা সবাই বিজয়ী প্যানেল সম্মিলিত পরিষদ থেকে পরিচালক নির্বাচিত হন।

শহিদুল্লাহ আজিম সমকালকে বলেন, এ বছর সভাপতি পদ নিয়ে ফারুক হাসানের বিরুদ্ধে নিজেদের দল সম্মিলিত পরিষদ প্যানেলে কোনো মতপার্থক্য ছিল না। তবে সহসভাপতি পদ নিয়ে অনেক বাদানুবাদ হয়েছে। দফায় দফায় বৈঠকেও কোনো সমাধানে আসা যায়নি। শেষ পর্যন্ত সম্মিলিত পরিষদের সভাপতি বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি, সাধারণ সম্পাদক সাংসদ আব্দুস সালাম মুর্শেদী, বিজিএমইএর সাবেক সভাপতি ঢাকা উত্তরের মেয়র আতিকুল ইসলাম, সাবেক সভাপতি ও সাংসদ সফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন এক বৈঠকে সাত সহসভাপতির নাম চূড়ান্ত করেন।