একটি পূজামণ্ডপের সামনে বসে রয়েছেন নায়িকা অপু বিশ্বাস। পরেছেন শাড়ি, সেজেছেন পূজার সাজে। ভক্তদের উদ্দেশ্য করে বললেন, ‘সবাইকে বিজয়া দশমীর শুভেচ্ছা। সবাই অনেক ভালো থাকুন, সুস্থ থাকুন, সুন্দর থাকুন।'

হিন্দুধর্মালম্বীদের সবচেয়ে বড় উৎসব হচ্ছে দূর্গা পূজা। তবে বড় উৎসবের হলেও  সব পূজামণ্ডপের বাতাসেই এখন বিষাদের ছায়া। হিন্দু ধর্মাবলম্বী মানুষের ঘরে ঘরে মন খারাপের দিন যেনো আজ। কারণ ঢাক-কাঁসরের বাদ্যি-বাজনা আর পূজারি ও ভক্তদের পূজা-অর্চনায় কেবলই মা দুর্গার বিদায়ের আয়োজন চলছে। পাঁচ দিনের সার্বজনীন মিলনমেলা ভাঙবে আজ।

দেবী দুর্গার এই বিদায়ের আয়োজনের দিনে ভিডিও বার্তায় অপু বিশ্বাস বলেন,আমরা সবাই জানি, মা দুর্গা বিপদনাশিনী। আমি চাইব, মা দুর্গা এবার আমাদের সকল দুঃখ, কষ্ট, গ্লানি, মহামারি খুব দ্রুত সরিয়ে ফেলবে। আমরা ঠিক আগের মতই হাসতে পারব। এটাই প্রত্যাশা, এটাই আশা।’

শুক্রবার সকাল ৮টা ২৪ মিনিটের মধ্যে দশমীবিহিত পূজা শুরু হয়।  পূজা শেষে দর্পণ বিসর্জন দেওয়া হবে। এরপর সারাদেশে স্থানীয় আয়োজন ও সুবিধামতো সময়ে প্রতিমা বিসর্জন দেওয়া হবে।   বিসর্জনের মধ্য দিয়ে মর্ত্যলোক ছেড়ে বিদায় নেবেন মা দূর্গা। 

অশ্রুসজল চোখে হিন্দু সম্প্রদায়ের মানুষ বিসর্জন দেবেন প্রতিমা। এই দিনে তাই কিছুটা মন খারাপ অপু বিশ্বাসের।  দেবী দূর্গার আর্শিবাদে আগামী দিনগুলো সবার ভালো যাবে এমনটিই প্রত্যাশার কথা আজ জানালেন তিনি।