নিউইয়র্কের বাংলাদেশিরা প্রথমবারের মতো লায়লার একক সংগীত সন্ধ্যা উপভোগ করেছেন। বুধবার (৮ ডিসেম্বর) স্বাধীনতার ৫০ বছর উদযাপন উপলক্ষ্যে বাংলাদেশ ক্লাব ইউএসএ আলোচনা সভা ও একক সংগীত সন্ধ্যার আয়োজন করে।

এর আগে উডসাইডের কুইন্স প্যালেস মিলনায়তনে বিজয় উৎসব উদ্বোধন করেন আয়োজক সংগঠনের সভাপতি নুরুল আমিন বাবু। ক্লাবের সহসাধারণ সম্পাদক শিবলী সাদিকের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুল হায়দার। একক সন্ধ্যায় লায়লা বিজয়ের গানসহ ১৩টি ফোক ঘরানার গান পরিবেশন করেন। 

ক্লাবের সভাপতি নুরুল আমিন বাবু বলেন, আমরা বাংলার কৃষ্টি-কালচার হৃদয়ে ধারণ করতে চাই ও আগামী প্রজন্মের মধ্যে ছড়িয়ে দিতে চাই। আমরা নানান অনুষ্ঠানের মাধ্যমে শিকড়ের সন্ধান করবো। সাহিত্য-সংস্কৃতিচর্চা ও বিস্তারের মাধ্যমে আমরা অসাম্প্রদায়িক ও সমৃদ্ধ বাংলাদেশের স্বপ্ন দেখি। 

কণ্ঠশিল্পী সুলতানা ইয়াসমিন লায়লা বলেন,  বিজয়ের মাসে দেশে আনাচে-কানাচে অনুষ্ঠান হয়। গান গাই। এক মাসের জন্য আমেরিকা এসে মনটা খুব খারাপ হয়ে গিয়েছিল। ভেবেছিলাম গান গাওয়া হয়তো হবে না। এমন একটি অনুষ্ঠানে গান গাইতে পেরে আমি আপ্লুত। এ অনুষ্ঠান চলার মধ্যেই আরও দুটি সংগঠন ঘোষণা দিয়েছে আমাকে নিয়ে আরও দুটি গানের অনুষ্ঠান করবেন।  আমি নিউইয়র্কের মানুষের কাছে কৃতজ্ঞ। 

অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, ইতিহাসের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি সময় এখন। বাংলাদেশের স্বাধীনতা অর্জনের ৫০ বছর গুরুত্বপূর্ণ একটি মাইলফলক'। আর গোটা বিশ্বের কাছে বাংলাদেশকে উন্নয়নের রোল মডেল হিসেবে তুলে ধরেন তারা। 

অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বাউল শিল্পী সফি মণ্ডল, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা  ড. প্রদীপ কর, অ্যাটর্নি মঈন চৌধুরী, ব্যবসায়ী  শাহনেওয়াজ, রিয়েলটর নুরুল আজিম, নিউইয়র্ক মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এমদাদ চৌধুরী, সাংবাদিক আবদুল হামিদ। ক্লাবের সহ-সভাপতি এম উদ্দীন আলমগীর, মাসুদ হোসেন সিরাজী, সুমন মাহমুদ এবং বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক কার্যনির্বাহী সদস্য হেলাল মিয়া।