পশ্চিমবঙ্গে এনআরসি হবেই, বাদ যাবে ২ কোটি: দিলীপ ঘোষ

প্রকাশ: ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯     আপডেট: ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯      

অনলাইন ডেস্ক

দিলীপ ঘোষ

ভারতের পশ্চিমবঙ্গে জাতীয় নাগরিকপঞ্জি (এনআরসি) হবেই বলে জানিয়েছেন রাজ্যটির বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ।   

বুধবার দিল্লিতে বিজেপি সভাপতি তথা কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে বৈঠকে বসার ঠিক আগে এই দাবি তোলেন তিনি।

দিল্লিতে এক আলোচনা সভায় তিনি বলেন, আসামের মতো পশ্চিমবঙ্গেও এনআরসি হবে। তাতে প্রায় ২ কোটি মানুষ বাদ যাবে। বিদেশি নাগরিকেরা এসে রাজ্য তথা দেশের সম্পদ নষ্ট করছে। তা রুখতেই এনআরসি প্রয়োজন। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

পশ্চিমবঙ্গে এনআরসি রুখতে পথে নেমে প্রতিবাদ জানানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রীকে কটাক্ষ করে দিলীপ বলেন, মুখ্যমন্ত্রীর পুরনো অভ্যাস আছে কিছু হলেই রাস্তায় নেমে পড়া। বাড়ি থাকতে পারেন না। সেই অভ্যাস বজায় রাখতেই তিনি রাস্তায় নামছেন। ২০২১ সালের পরে তো রাস্তাতেই নামতে হবে। তবে যেই রাস্তায় নামুক, পশ্চিমবঙ্গে এনআরসি হবেই।

অমিতের সঙ্গে বৈঠকের আগে জানতে চাওয়া হয়েছিল, ‘শোভন-বৈশাখী’ প্রসঙ্গ উঠবে কি না। দিলীপ বলেন, এটি অভ্যন্তরীণ বিষয়।

গত ৩১ আগস্ট চূড়ান্ত জাতীয় নাগরিকপঞ্জিতে বাদ পড়েছে আসামের ১৯ লাখ লোক। এরপর থেকেই আসামের নাগরিকপঞ্জি নিয়ে গোটা ভারতের পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়ে রয়েছে।

এর আগে আসামে গিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানিয়েছেন, ভারতে কোনো অনুপ্রবেশকারীর জায়গা হবে না।