ফিলিপাইনের আগ্নেয়গিরিতে বিস্ফোরণ: সুনামি সতর্কতা

প্রকাশ: ১৩ জানুয়ারি ২০২০     আপডেট: ১৩ জানুয়ারি ২০২০   

অনলাইন ডেস্ক

ছাইয়ে ঢেকে গেছে আগ্নেয়গিরির আশপাশের এলাকা-রয়টার্স

ছাইয়ে ঢেকে গেছে আগ্নেয়গিরির আশপাশের এলাকা-রয়টার্স

ফিলিপাইনের রাজধানী ম্যানিলার কাছে ‘টাল’ আগ্নেয়গিরি থেকে অগ্নুৎপাত শুরু হয়েছে। ওই অঞ্চল থেকে প্রায় ৮ হাজার মানুষকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।

ফিলিপাইন ইন্সটিটিউট অব ভলকানোলজি এন্ড সিসমোলজি জানিয়েছে, রোববার টাল আগ্নেয়গিরির বাষ্প, ছাই এবং নুড়ি বাতাসে প্রায় ১০ থেকে ১৫ কিলোমিটার পর্যন্ত ছড়িয়ে পড়েছে। খবর রয়টার্সের

ওই এলাকায় সর্বোচ্চ ৫ মাত্রার মধ্যে প্রথমে ৩ থেকে ৪ মাত্রার জরুরি অবস্থা জারি করা হয়। কর্তৃপক্ষ অগ্নুৎপাতের ফলে সুনামির সতর্কতা দিয়েছে।

আগ্নেয়গিরি ইনস্টিটিউটের প্রধান রেনাটো সলিডাম বলেছেন, কয়েক ঘণ্টা বা দিনের মধ্যেই বিপদজনক বিস্ফোরণ ঘটাতে পারে। আগ্নেয়গিরির বিপদের সর্বোচ্চ মাত্রা ধরা হয় ৫। টাল আগ্নেয়গিরির বিপদের মাত্রা ৪ নম্বর স্তরে পৌঁছেছে। অর্থাৎ, আগ্নেয়গিরিতে বিপদজনক বিস্ফোরণ চলছে। এই বিস্ফোরণ বেশ বড় অঞ্চলকে প্রভাবিত করতে পারে।

 আগ্নেয়গিরি থেকে কয়েক কিলোমিটার দূরের শহরেও ভারী থেকে হালকা ছাইয়ের আবরণ পড়ার সংবাদ জানা গেছে।

বাতাসে ছড়িয়ে পরা ছাই থেকে স্বাস্থ্য ঝুঁকির কথা বিবেচনা করে ম্যানিলা ও এর আশপাশের শিক্ষা ও ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখা হয়েছে।

বিশ্বের অন্যতম ছোট আগ্নেয়গিরির একটি ‘টাল’, যা ফিলিপাইনের প্রায় দুই ডজন জীবন্ত আগ্নেয়গিরির একটি। 

প্রতি বছর প্রায় ২০টি টাইফুন বা ঝড় ফিলিপাইনে আঘাত হানায় এটি বিশ্বের অন্যতম দুর্যোগপ্রবণ দেশে পরিণত হয়েছে।