বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসের উৎপত্তিস্থল বলে বিবেচিত চীনের হুবেই প্রদেশের উহান শহর থেকে আগামী ৮ এপ্রিল লকডাউন উঠে যাচ্ছে। গত দুই মাস ধরে উহান লকডাউন অবস্থায় ছিল।

মঙ্গলবার প্রদেশটির স্বাস্থ্য কমিশন এক ঘোষণায় এ তথ্য জানিয়েছে। খবর রয়টার্সের

স্বাস্থ্য কমিশন জানিয়েছে, আগামী ২৫ মার্চ থেকে উহান বাদে হুবেই প্রদেশে প্রবেশ ও বাইরে যাওয়ার ওপর আরোপিত সব ধরনের বিধিনিষেধ তুলে নেওয়া হবে।

গত বছরের ডিসেম্বরের শেষদিকে উহানে প্রথম করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঘটে। কিছুদিনের মধ্যে ভাইরাসটির সংক্রমণ দ্রুত হুবেই প্রদেশজুড়ে ছড়িয়ে পড়লে কর্তৃপক্ষ প্রদেশটি লকাডাউন করে দেয়।

গত সোমবার হুবেইয়ের স্বাস্থ্য কমিশন জানায়, প্রদেশটিতে মোট ৬৭ হাজার ৮০১ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও তিন হাজার ১৬০ জনের মৃত্যু হয়েছে। তবে প্রদেশটিতে নতুন আক্রান্তের সংখ্যা উল্লেখযোগ্যভাবে হ্রাস পেয়েছে। গত ছয় দিনে প্রদেশটিতে মাত্র একজন আক্রান্ত হয়েছেন বলে স্বাস্থ্য কমিশন জানিয়েছে।

চীনের মূলভূখণ্ডজুড়ে এ পর্যন্ত প্রায় ৮২ হাজার লোক এই ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়েছেন, তাদের মধ্যে তিন হাজার ২৭৭ জনের মৃত্যু হয়েছে এবং ৭৩ হাজার রোগী সুস্থ হয়ে হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেয়েছেন।     

নভেল করোনাভাইরাস বিশ্বের ১৯৫টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে। মঙ্গলবার সকাল পর্যন্ত এই ভাইরাসে মৃত্যু হয়েছে ১৬ হাজার ৫১৪ জনের।

করোনাভাইরাসের সর্বশেষ তথ্য প্রদানকারী ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ড ও মিটারস এর তথ্য অনুসারে, এখন পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৩ লাখ ৮১ হাজার ৭৬১ জন। আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থ হয়েছে ১ লাখ ২ হাজার ৪২৯ জন। 

করোনার উৎপত্তিস্থল চীনের বাইরে সবচেয়ে বেশি মৃত্যুর সংখ্যা ইতালিতে। এখন পর্যন্ত দেশটিতে ৬ হাজার ৭৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। আর করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা এখন ৬৩ হাজার ৯২৮ জন। 

ইতালির পরেই রয়েছে স্পেন। সেখানে আক্রান্ত হয়েছেন ৩৫ হাজার ১৩৬ জন, মারা গেছেন ২ হাজার ৩১১ জন। অন্যদিকে, ইরানে আক্রান্ত হয়েছেন ২৩ হাজার ৪৯ জন, মারা গেছেন ১ হাজার ৮১২ জন।