যুক্তরাজ্যে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় ও ওষুধ প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান অ্যাস্ট্রাজেনেকার উৎপাদিত করোনাভাইরাসের টিকা ব্যবহারের অনুমোদন চেয়ে আবেদন করা হয়েছে।

দেশটির মেডিসিনস অ্যান্ড হেলথকেয়ার রেগুলেটরি এজেন্সির (এমএইচআরএ) কাছে ওই দুই প্রতিষ্ঠান এই আবেদন করেছে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা এএফপি।

এক সংবাদ সম্মেলনে স্থানীয় সময় বুধবার যুক্তরাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী ম্যাট হ্যানকক বলেন, আমি এই তথ্য জানাতে পেরে আনন্দিত যে, অক্সফোর্ড অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা ব্যবহারের জন্য প্রতিষ্ঠান দুটির পক্ষ থেকে এমএইচআরএ’র কাছে সম্পূর্ণ তথ্য জমা দেওয়া হয়েছে। এখন পরবর্তী সিদ্ধান্তের অপেক্ষা।

এ সময় মন্ত্রী করোনার নতুন ধরন নিয়ন্ত্রণ করতে দক্ষিণ আফ্রিকায় ভ্রমণের ওপর নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হবে বলেও জানান।

অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় উদ্ভাবিত এই করোনার টিকা উৎপাদন করছে ওষুধ প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান অ্যাস্ট্রাজেনেকা। অনুমোদন পেলে আগামী বছরের শুরুর দিকে দেশটিতে এর ব্যবহার শুরু হতে পারে।

ফাইজারের টিকা মাইনাস ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় সংরক্ষণ করতে হয়। আর অক্সফোর্ডের টিকা সংরক্ষণ করা যাবে সাধারণ রেফ্রিজারেটরেই।

এর আগে ২ ডিসেম্বর বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে ফাইজার-বায়োএনটেকের করোনার টিকা ব্যবহারের অনুমোদন দেয় যুক্তরাজ্য। ৮ ডিসেম্বর দেশটিতে এই টিকার প্রয়োগ শুরু হয়।

অক্সফোর্ডের টিকা অনুমোদন পেলে যুক্তরাজ্যে করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলা কিছুটা সহজ হবে বলে ধারণা বিশেষজ্ঞদের। এরই মধ্যে এই টিকার ১০০ মিলিয়ন ডোজ অর্ডার দিয়ে রেখে দেশটির সরকার।