বাংলাদেশি শ্রমিকদের ফিরিয়ে নিতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে দীর্ঘদিনের গৃহযুদ্ধপীড়িত লিবিয়ার গভর্নমেন্ট অব ন্যাশনাল অ্যাকর্ড (জিএনএ) বা সমঝোতার সরকার। 

বুধবার দেশেটির রাজধানী ত্রিপোলিতে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত শেখ ইস্কান্দারের সঙ্গে এক বৈঠকে এ আগ্রহের কথা জানান জিএনএর শ্রম ও পুনর্বাসনবিষয়ক মন্ত্রী আল-মাহদি আল-আমিন। এ সময় উভয় দেশের পরস্পর সহযোগিতা ও দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক জোরদার করার বিষয়েও আলোচনা হয়। খবর লিবিয়া অবজারভারের।

বৈঠকে আগামী মাসে লিবিয়ার একটি প্রতিনিধি দলের বাংলাদেশ সফরের ব্যাপারে উভয়পক্ষ সম্মত হয়। আসন্ন সফরে অর্গানাইজেশন অব ফরেন ওয়ার্কার্সের সর্বোচ্চ কমিটির মাধ্যমে লিবিয়ার শ্রমবাজারে বাংলাদেশি শ্রমিকদের অবস্থা নিয়ে আলোচনা হওয়ার কথা রয়েছে।

২০১১ সালে লৌহমানবখ্যাত লিবিয়ার নেতা মুয়াম্মার আল গাদ্দাফির শাসনের অবসান হওয়ার মধ্য দিয়ে দেশটিতে গৃহযুদ্ধ শুরু হয়। এরপর থেকে দেশটিতে সহিংস পরিস্থিতি বিরাজ করছে। এ কারণে বাংলাদেশিসহ বহু শ্রমিক দেশটি ছেড়ে গেছেন। এর অধিকাংশই বিভিন্ন উপায়ে ইউরোপে পাড়ি জমিয়েছেন এবং অনেকে দেশে ফিরেছেন। অন্যদিকে, লিবিয়ায় সহিংস পরিস্থিতির মধ্যে কাজ করতে গিয়ে এবং বিপজ্জনক উপায়ে ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে ইউরোপে যাওয়ার চেষ্টাকালে অনেক শ্রমিকের প্রাণহানির ঘটনা ঘটেছে।