ক্ষমতা থেকে বিদায়ের মাত্র এক সপ্তাহ আগে প্রতিনিধি পরিষদে অভিশংসিত হলেও স্বপদেই বহাল থাকছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

নিয়ম অনুযায়ী, প্রতিনিধি পরিষদ প্রেসিডেন্টকে অভিশংসন করলেও প্রস্তাবটি সিনেটে পাস হতে হয়। তবে ২০ জানুয়ারির আগে সিনেট অধিবেশন বসছে না বলে জানিয়েছেন সিনেট নেতা মিচ ম্যাককনেল। সেদিনই মেয়াদ শেষ হবে ট্রাম্পের এবং  নতুন প্রেসিডেন্ট হিসেবে অভিষেক হবে জো বাইডেনের। ফলে ট্রাম্পের মেয়াদ শেষ হওয়ার আগে সিনেটে প্রস্তাবটি পাস না হওয়ায় সুযোগ নেই।

কয়েক ঘণ্টার বিতর্ক শেষে ভিন্ন রকমের এক ইতিহাস গড়ে যুক্তরাষ্ট্রের পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদে বুধবার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে অভিশংসন করা হয়। এর মধ্য দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম প্রেসিডেন্ট হিসেবে ট্রাম্প দু'বার অভিশংসিত হলেন। ক্ষমতা থেকে বিদায়ের মাত্র এক সপ্তাহ আগে ট্রাম্পকে এই লজ্জাজনক পরিণতি ভোগ করতে হয়েছে।

এবার ট্রাম্পের দল রিপাবলিকান পার্টির ১০ আইনপ্রণেতাও অভিশংসনের পক্ষে ভোট দিয়েছেন। প্রস্তাবের পক্ষে ভোট পড়েছে ২৩১ এবং বিপক্ষে ১৯৭টি। সংখ্যাগরিষ্ঠতার জন্য প্রয়োজন ছিল ২১৭ ভোট।

এর আগে ২০১৯ সালেও ট্রাম্পকে অভিশংসন করেছিল প্রতিনিধি পরিষদ। পরে রিপাবলিকান নিয়ন্ত্রিত সিনেটে তাকে অভিযোগ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়। যুক্তরাষ্ট্রে এর আগে ট্রাম্প ছাড়াও বিল ক্লিনটন ও অ্যান্ড্রু জনসনকে অভিশংসন করেছিল প্রতিনিধি পরিষদ। সিনেটে তাদেরও খালাস দেওয়া হয়। সিনেটে প্রেসিডেন্টকে দোষী সাব্যস্ত করতে দুই-তৃতীয়াংশ সদস্যের সমর্থন প্রয়োজন। যুক্তরাষ্ট্রের দ্বিদলীয় ব্যবস্থায় সেটা প্রায় অসম্ভব ব্যাপার। সূত্র: সিএনএন, বিবিসি ও এএফপি।