ভারতের পশ্চিমবঙ্গের কৃষ্ণনগর উত্তরের বিধানসভা আসনে বিজেপির টিকিটে জেতা মুকুল রায় তৃণমূল কংগ্রেসে ফিরে যাওয়ার পর তার ঘনিষ্ঠরা দাবি করেছিলেন, তিনি 'নৈতিক কারণে' বিধায়ক পদ ছেড়ে দেবেন। 

গত শুক্রবার রাজ্যে ক্ষমতাসীন দলে ফিরে যাওয়ার পর এমন সম্ভাবনা তৈরি হয়েছিল। তবে তৃণমূলের শীর্ষ নেতৃত্বের নির্দেশের সেই সিদ্ধান্ত বদলে গেছে বলে উল্লেখ করে আনন্দবাজার পত্রিকা।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, যতক্ষণ না দলের শীর্ষ নেতৃত্ব তাকে পদত্যাগের নির্দেশ দিচ্ছেন, ততক্ষণ মুকুল রায় বিধায়কই থাকছেন। এর কারণ হিসেবে বলা হচ্ছে, নতুন বিধানসভার গুরুত্বপূর্ণ কমিটিগুলোর অন্যতম পাবলিক অ্যাকাউন্টস কমিটির (পিএসি) চেয়ারম্যান করা হতে পারে মুকুলকে। বিধানসভার রীতি অনুযায়ী, তা একেবারে অসম্ভব নয় বলেও মত দিয়েছেন অভিজ্ঞ এবং প্রবীণ বিধায়করা।

তৃণমূলের এক প্রবীণ নেতার ভাষ্য, 'দেখা যাক না, বিজেপি কী করে! আমরা ঠিক করেছি, সম্মুখ লড়াইয়ে যাব।'

বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী অবশ্য এর একদিন আগে জানিয়েছেন, তারা বুধবারই স্পিকারের কাছে মুকুলের বিরুদ্ধে দলত্যাগবিরোধী আইন প্রয়োগের দাবি করবেন।

সূত্রের খবর, দলীয় স্তরে মুকুলকে পিএসি চেয়ারম্যান হিসেবে এগিয়ে দেওয়ার ভাবনাচিন্তা শুরু হলেও বিষয়টি এখনও চূড়ান্ত হয়নি।