ভারতের পশ্চিমবঙ্গের আলোচিত নারদা কেলেঙ্কারি মামলায় সুপ্রিম কোর্টের শরণাপন্ন হয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এ মামলায় তাকে এবং আইনমন্ত্রী মলয় ঘটককে পক্ষ করায় সর্বোচ্চ আদালতের শরণাপন্ন হয়েছেন তিনি। খবর এনডিটিভির।

নারদা মামলা অন্য কোথাও স্থানান্তর করা হবে কিনা, সিবিআইর আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে এ নিয়ে শুনানি চলছে কলকাতা হাইকোর্টের পাঁচ সদস্যের ডিভিশন বেঞ্চে। এ মামলায় রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ও আইনমন্ত্রীকে পক্ষ করায় অসন্তুষ্ট তৃণমূল কংগ্রেস। মুখ্যমন্ত্রী ও আইনমন্ত্রী তাদের জড়িত করার বিষয় নিয়ে হলফনামা দিয়ে বক্তব্য পেশ করার আবেদন জানালেও হাইকোর্ট সে আবেদন খারিজ করে দিয়েছেন।

এবার হাইকোর্টের এ আদেশের বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টের শরণাপন্ন হন মুখ্যমন্ত্রী।  

মঙ্গলবার সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি হেমন্ত গুপ্ত ও বিচারপতি অনিরুদ্ধ বসুর সমন্বয়ে গঠিত অবকাশকালীন ডিভিশন বেঞ্চে মমতার আবেদনের শুনানি হবে। ভার্চুয়ালি অনুষ্ঠিত হবে এই শুনানি।

নারদা মামলায় গত ১৭ মে তৃণমূল ও বিজেপির চার নেতাকে গ্রেপ্তার করে সিবিআই। গ্রেপ্তারের দিন মমতা কলকাতার সিবিআই দপ্তর নিজাম প্যালেসে গিয়ে তাদের মুক্তি দাবি করে অবস্থানে বসেছিলেন।