তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান বলেছেন, চলতি মাসের শেষে আন্তর্জাতিক বাহিনীর বিদায়ের পর কাবুল বিমানবন্দর পরিচালনায় সহায়তা করতে তালেবানের সঙ্গে সরাসরি আলোচনা করেছে তার সরকার। 

বৃহস্পতিবার কর্মকর্তারা তালেবানের সঙ্গে সাড়ে তিন ঘণ্টা ধরে আলোচনা করেছেন এবং পরামর্শ দিয়েছেন তুরস্কের জন্য বিমানবন্দর পরিচালনার সুযোগ উন্মুক্ত রাখতে। তবে, গুরুত্বপূর্ণ ক্ষেত্রে তালেবানরা নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকবে। বিদেশি সেনা প্রত্যাহারের কাবুল বিমানবন্দরে কীভাবে পরিচালিত এবং সুরক্ষিত করা যায়- সেই প্রশ্নটি আফগানিস্তানের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বাধীন ন্যাটোর অংশ হিসেবে ২০ বছর ধরে লড়াইয়ে অংশ নিয়েছিল তুরস্কের সেনারা। 

এখন তালেবান চাইছে, তারা অবশ্যই আফগানিস্তান ছাড়ূক। তবে এরদোয়ান বলেছেন, আলোচনা হলেও বিমানবন্দরে উপস্থিত থাকার বিষয়ে এখনও কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। বিবিসি।