সৌরজগতের দ্বিতীয় বৃহত্তম গ্রহ শনির চাঁদগুলোর মধ্যে আটটি প্রধান। এর মধ্যে আছে মিমাস। এই উপগ্রহের পরিবেশ অনেকটা পৃথিবীর মতো উষ্ণ। এতে আছে মহাসাগর। অন্তত ২৪ থেকে ৩১ কিলোমিটার পুরু বরফে আচ্ছাদিত মিমাস।

মহাসাগরের তরল পানির স্পর্শ পেতে বরফের পুরু আস্তরণ ভেদ করতে হবে বলে দাবি করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসার গবেষকরা। তারা উপগ্রহটি থেকে সংগ্রহ করা ক্যাসিনি মিশনের তথ্য-উপাত্ত বিশ্নেষণ করে সেখানে মহাসাগর থাকার বিষয়ে সিদ্ধান্তে পৌঁছেছেন। খবর সায়েন্স নিউজের

এই মিশন যৌথভাবে পরিচালনা করছে নাসা নেতৃত্বাধীন তিনটি মহাকাশ গবেষণা সংস্থা। শনি ও এর উপগ্রহগুলো সম্পর্কে অনুসন্ধান চালাচ্ছে তারা। গবেষণায় ইঙ্গিত পাওয়া গেছে, আমাদের সৌরজগতে পৃথিবীর মতো অন্যত্র এমনই উষ্ণ পরিবেশ আছে।

মিমাস এতদিন একটি গর্তেভরা উপগ্রহ হিসেবে পরিচিত ছিল বলে মন্তব্য করেছেন সাউথওয়েস্ট রিসার্চ ইনস্টিটিউটের গবেষক ড. আলিসা হোদেন। তিনি বলেন, আমরা মনে করতাম, সেখানে শুধু বরফই আছে। কিন্তু সম্প্রতি গবেষণায় পাওয়া তথ্যে মনে হচ্ছে, এই সৌরব্যবস্থায় বসবাসের জন্য আরও অনেক জায়গা আছে।