মালয়েশিয়ার সাবেক প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদের শারীরিক অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়েছে। তবে তাকে হাসপাতালে থেকে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের তত্ত্বাবধানে চিকিৎসা নিতে হবে। মঙ্গলবার তার মেয়ে এ তথ্য জানান। 

মঙ্গলবার এক বিবৃতিতে মাহাথিরের মেয়ে মেরিনা মাহাথির জানান, তার বাবার ক্ষুধামন্দা কিছুটা কেটেছে। তিনি আগের চেয়ে সুস্থ আছেন। পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে তিনি কথাবার্তা বলছেন। এমনকি তিনি পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে মজাও করছেন। এছাড়া তিনি মানুষজনকে তার স্বাস্থ্য নিয়ে উদ্বিগ্ন হতে বারণ করেছেন। খবর রয়টার্সের।  

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের মানুষ ও নেতাদের শুভকামনার কথা উল্লেখ করে মেরিনা বলেন, যারা তার (মাহাথির মোহাম্মদ) জন্য দ্রুত সুস্থতা কামনা করে দোয়া করেছেন তাদের ধন্যবাদ এবং এতে মাহাথির এবং তার পরিবার অভিভূত হয়েছে।   

৯৬ বছর বয়সী মাহাথির বিশেষজ্ঞদের তত্ত্বাবধানে দেশটির ন্যাশনাল হার্ট ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন আছেন। তিনি মালয়েশিয়ার দুই দশকেরও বেশি সময় প্রধানমন্ত্রী ছিলেন। বর্তমানেও তিনি দেশটির আইনপ্রণেতা। 

এর আগে গত ডিসেম্বরে তাকে একই হাসপাতাল তেকে চিকিৎসা শেষে ছেড়ে দেওয়া হয়েছিল। তখন চিকিৎসকরা তার বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষার রিপোর্ট দেখে বলেছিলেন, তারা রিপোর্ট দেখে সন্তুষ্ট। কিন্তু গত ৮ জানুয়ারি তাকে আবারও হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।