দেশের রাজনীতিতে সশস্ত্র বাহিনী এবং এর নেতৃত্বকে টেনে আনায় রাজনীতিবিদ, সাংবাদিক এবং বিশ্লেষকদের সতর্ক করেছে পাকিস্তান সেনাবাহিনী। তারা বলেছে, এই ধরনের চর্চা ‘অত্যন্ত ক্ষতিকর’। 

রোববার দেশটির সেনাবাহিনীর আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তর (আইএসপিআর) থেকে পাঠানো এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, সম্প্রতি দেশের চলমান রাজনৈতিক আলাপ-আলোচনায় জোরালোভাবে এবং ইচ্ছাকৃতভাবে পাকিস্তান সশস্ত্র বাহিনীকে টেনে আনার চেষ্টা চলছে। খবর দি এক্সপ্রেস ট্রিবিউনের।

আর এই ধরনের প্রচেষ্টার মধ্যে রয়েছে রাজনৈতিক আলোচনায় সশস্ত্র বাহিনী এবং এর নেতৃত্বকে সরাসরি বা আকারে ইঙ্গিতে উল্লেখ করা। কিছু রাজনৈতিক নেতা, কিছু সাংবাদিক ও বিশ্লেষক বিভিন্ন পাবলিক ফোরাম এবং বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম প্লাটফর্মে এইগুলো করছেন। 

আইএসপিআর বলেছে, এই ধরনের অসমর্থনযোগ্য, মানহানিকর এবং উসকানিমূলক বক্তব্য/মন্তব্য অত্যন্ত ক্ষতিকর। এমন বেআইনি ও অনৈতিক চর্চায় পাকিস্তান সশস্ত্র বাহিনী গভীরভাবে উদ্বিগ্ন। সশস্ত্র বাহিনীর প্রত্যাশা দেশের বৃহৎ স্বার্থে সশস্ত্র বাহিনীকে রাজনীতি থেকে দূরে রাখা হবে এবং সবাই আইন মেনে চলবে।