ভয়াবহ অর্থনৈতিক সংকটে বিপর্যস্ত শ্রীলঙ্কায় এখন প্রয়োজনীয় ওষুধের অভাব দেখা দিয়েছে। দেশটির প্রায় সব হাসপাতালেই জীবন রক্ষাকারী ওষুধ না থাকায় গুরুতর অসুস্থ রোগীদের চিকিৎসা থেমে আছে।

প্রয়োজনীয় ওষুধের অভাবে শ্রীলঙ্কার স্বাস্থ্য ব্যবস্থা প্রায় ভেঙে পড়ার পর্যায়ে পৌঁছেছে। অর্থনৈতিক সংকটের কারণে বিদেশি মুদ্রা ফুরিয়ে যাওয়ায় দ্বীপদেশটি কোনো ধরনের ওষুধ আমদানি করতে পারছে না। নিজেদের প্রয়োজনীয় ৮০ শতাংশের বেশি ওষুধ দেশটি আমদানি করে থাকে। খবর রয়টার্সের। 

বন্দর রাজধানী কলম্বোর উপকণ্ঠে অবস্থিত ৯৫০ শয্যবিশিষ্ট ‘অপেক্ষা’ ক্যানসার হাসপাতাল। হাসপাতালটিতে রোগী, স্বজন এবং ডাক্তাররা ওষুধের অভাবে ক্রমশ অসহায় হয়ে পড়ছেন এবং বাধ্য হয়ে রোগীর বিভিন্ন পরীক্ষা ও জটিল অপারেশন স্থগিত করছেন। 

রোশান অমরাতুঙ্গা  নামে হাসপাতালটির এক চিকিৎসক  বলেন, ক্যানসার রোগীর জন্য এটা খুবই খারাপ। মাঝে মধ্যে এমন হয়, সকালে আমরা কয়েকটি অপারেশনের পরিকল্পনা করি কিন্তু সরবরাহ না পেয়ে নির্দিষ্ট দিনে আর তা করা যায় না। 

তিনি আরও বলেন, ক্যান্সার রোগীদের জন্য পরিস্থিতি খুবই খারাপ। পরিস্থিতির দ্রুত উন্নতি না হলে বেশ কিছু রোগীকে এক অর্থে 'মৃত্যুদণ্ড' দেওয়া হবে বলে মন্তব্য করেছেন তিনি।

বিষয় : জীবন রক্ষাকারী ওষুধ চরম সংকট ক্যানসার হাসপাতাল গুরুতর রোগী

মন্তব্য করুন