একটি হোটেল রুম থেকে তাইওয়ানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের গবেষণা ও উন্নয়ন ইউনিটের উপপ্রধানের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। বিভিন্ন ক্ষেপণাস্ত্র উৎপাদন প্রকল্প তদারকি করার জন্য চলতি বছরের শুরুতে তাকে এ পদে বসানো হয়েছিল।

শনিবার সকালে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। খবর রয়টার্সের।

তাইওয়ানের সরকার নিয়ন্ত্রিত সংবাদমাধ্যম সেন্ট্রাল নিউজ এজেন্সির (সিএনএ) বরাতে খবরে বলা হয়, হার্ট অ্যাটাকে তার মৃত্যু হয়েছে।

সিএনএ জানায়, সামরিক বাহিনীর মালিকানাধীন চুং-শান ইনস্টিটিউট অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজির উপপ্রধান ও ইয়াং লি-শিং দক্ষিণ তাইওয়ানের একটি হোটেলে মারা গেছেন।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, কর্তৃপক্ষ বলছে, ৫৭ বছর বয়সি ও ইয়াং হার্ট অ্যাটাকের কারণে মারা গেছেন এবং হোটেল রুমে কোনো ধরনের ‘অনুপ্রবেশের’ চিহ্ন পাওয়া যায়নি। ওই কর্মকর্তার পরিবার জানায়, তার হার্টে রোগের ইতিহাস ছিল এবং একটি কার্ডিয়াক স্টেন্ট ছিল।

ও ইয়াং দ্বীপের দক্ষিণাঞ্চলের পিংতুং এলাকায় ব্যবসা সংক্রান্ত একটি সফরে ছিলেন। 

সিএনএ জানায়, বিভিন্ন ক্ষেপণাস্ত্র উৎপাদন প্রকল্প তদারকি করার জন্য তাকে কোম্পানিটির উপপ্রধানের পদে বসানো হয়েছিল।

সামরিক মালিকানাধীন চুং-শান ইনস্টিটিউট অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি তার ক্ষেপণাস্ত্র উৎপাদন ক্ষমতা দ্বিগুণের বেশি বাড়াতে কাজ করছে। চীনের সামরিক হুমকির মুখে দ্বীপটি চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে যুদ্ধের সক্ষমতা বাড়াতে।